স্কুলে পড়েছেন বৈদিক সভ্যতার সপ্ত ঋষির নামে আকাশে জ্বলজ্বল করে সপ্তর্ষিমণ্ডল | আকাশপাঠের পাশাপাশি আসুন একবার খোঁজার চেষ্টা করি সেই সাত ঋষিকে |

হিন্দু পুরাণের নানা উৎসে সাত ঋষির নাম পরিবর্তিত হয়ে গিয়েছে | তবে সবথেকে বেশি স্থানে যাঁদের নাম রয়েছে তাঁদের কথাই বলব | সেই সাত ঋষি হলেন ভৃগু‚ অত্রি‚ অঙ্গীরা‚ বশিষ্ঠ‚ পুলস্ত্য‚ পুলহ ও ক্রতু |

এই পর্বে ক্রতুর কথা |

সপ্তর্ষির মধ্যে সর্বাপেক্ষা কম উল্লেখিত হয় মহা ঋষি ক্রতুর নাম | তিনিও প্রজাপতি ব্রহ্মার মানসপুত্র | হিন্দু পুরাণে একাধিক স্থানে তিনি আবির্ভূত হয়েছেন ভিন্নতর রূপে |

স্বয়ম্ভু মানবন্তর অনুযায়ী ক্রতু ছিলেন রুদ্রর মিত্র | তখনও রুদ্র রূপেই অধিকতর পরিচিত শিব বা মহাদেব | তবে তাঁর আদি পরিচয় পশুপতি রূপে | পশুপতি অর্থাৎ পশুদের অধিপতি |

যাযাবর জীবনযাত্রা ছেড়ে কৃষিকাজে মনোনিবেশ করার সঙ্গে সঙ্গে মানবজীবনে গুরুত্ব বৃদ্ধি পায় গবাদি পশুর | যাঁর কাছে যত পশু তিনি তত ক্ষমতাবান |

কিন্তু সমস্যা হল‚ পশুপতি বা রুদ্ররূপে পুজোর ধারনা অনার্য | সিন্ধু সভ্যতায় হরপ্পা মহেঞ্জোদাড়োতে পূজিত হতেন পশুপতি | ফলে আর্য সমজে ধীরে ধীরে গ্রহণযোগ্যতা পেলেন বটে | কিন্তু সহসা কৌলিন্য এল না |

একবার কী হল‚ পশুপতির অধীনে থাকা সব পশু লুঠ করে নিল দেবতা-উপদেবতারা | নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিল সেই পশু-সম্পদ | ফলত নিজের পশুপতি উপাধি হারিয়ে ফেললেন রুদ্র |

ক্ষমতাচ্যুত রুদ্র শরণাপন্ন হলেন প্রজাপতি ব্রহ্মার | তিনি আশ্বাস দিলেন রুদ্রকে | দ্রুত তাঁকে ফিরিয়ে দেওয়া হবে হৃত সম্মান | নইলে কুপিত রুদ্র তাঁর ধ্বংসলীলায় বিনাশ করতে চাইছিলেন সব দেবতা কুলের |

রুদ্রের বিরুদ্ধে জোট বেঁধেছিলেন যে দেবতারা‚ তাঁদের সহযোগে এক মহাযজ্ঞের আয়োজন করলেন দক্ষ | উৎসর্গ করা হল অগণিত পশু | সেই যজ্ঞে আমন্ত্রণ জানানো হল না দক্ষের জামাতা রুদ্রকে |

এরপর কী হয়েছিল আমরা সবাই জানি | স্বামীর অপমানে দক্ষ কন্যা সতী যজ্ঞের আগুনে ঝাঁপ দিয়ে আত্মাহূতি দিয়েছিলেন | তারপর স্ত্রীর দেহ কাঁধে ফেলে যে মূর্তি ধারণ করেছিলেন রুদ্র‚ সেটাই মহাকালের রুদ্ররূপ |

যজ্ঞের আগুনে কেশরাশি নিক্ষেপ করলেন রুদ্র | উদ্ভূত হল বীরভদ্র বা ভৈরব অবতার | তাঁরা রুদ্রের আদেশে বিনাশ করতে উদ্যত হলেন যজ্ঞে যোগদানকারী দেবতা উপদেবতাদের |

ভৈরব আক্রমণে মস্তক ছেদ করা হল স্বয়ং দক্ষের | সূর্যদেব পূষণের দাঁত উপড়ে নেওয়া হল | আর এক দেবতার চোখ বিনষ্ট করা হল | এ বার কোপ পড়ল ঋষি ক্রতুর উপরে |

রুদ্র বা পশুপতির ঘনিষ্ঠ মিত্র ছিলেন ঋষি ক্রতু | তাঁর এই যজ্ঞে যোগদান করায় অত্যন্ত মনঃক্ষুণ্ণ হয়েছিলেন রুদ্র | তাঁর অবতার ভৈরবরা নিস্তার দিল না তাঁকেও | ছিন্ন করা হল ঋষি ক্রতুর অণ্ডকোষ |

অঙ্গহানি হওয়ার পরে দেবতা‚ উপদেবতারা রুদ্র বা পশুপতির পায়ে পড়লেন | রুদ্র বললেন‚ তাঁর অধীনে সব দেবতাকে পশু হয়ে থাকতে হবে | তবে তিনি ক্ষমা করবেন তাঁদের |

এই শর্তে রাজি না হওয়া ছাড়া উপায় ছিল না দেবতাদের | এর পরেই রুদ্র বা পশুপতি হয়ে গেলেন সুপ্রিম পাওয়ার | ত্রিদেবের এক জন—এই আসন থেকে চ্যুত করা যায়নি মহাদেবকে |

যাই হোক‚ ফিরে আসি ঋষি ক্রতুর প্রসঙ্গে | বাকি দেবতাদের মতো তিনিও ফিরে পেলেন ছিন্ন অঙ্গ | অণ্ডকোষের সঙ্গে ফিরে এল তাঁর হৃত পৌরুষ | দক্ষের মস্তক-স্থানে বসানো হয় একটি ছাগের মাথা |

পুরুষত্ব ফিরে পেয়ে বিবাহ করলেন ক্রতু | দক্ষের এক কন্যা সন্নতি বা সন্ততিকে | ৬০ হাজার পুত্র জন্মাল তাঁদের | কিন্তু তাঁরা সবাই ক্ষুদ্রকায় | মানুষের বৃদ্ধাঙ্গুষ্ঠের অর্ধেক আয়তনের সমান হলেন তাঁরা | ক্ষুদ্র মানব বা মানবক এই ঋষিদের বলা হয় বালখিল্য | ( এখান থেকেই বালখিল্য কথাটির জন্ম ) | এঁরা সবাই ছিলেন ব্রহ্মচারী |

আর এক পৌরাণিক সূত্র বৈবস্বত মানবন্তর অনুযায়ী‚ ঋষি ক্রতুর আরও একবার জন্ম হয়েছিল | প্রজাপতি ব্রহ্মার হাত থেকে তিনি উদ্ভুত হন | মৎস্য পুরাণে তিনি আবার ভৃগুপুত্র ভার্গব | তাঁর মাতার নাম পৌলমী |

সাতটি পর্বে এই ছিল সপ্তর্ষির সংক্ষিপ্ত পরিচয় | ভবিষ্যতে এই প্রসঙ্গে আরও কিছু বলার ইচ্ছে থাকল |

এই প্রসঙ্গে :

আরও পড়ুন:  ১ টা টমেটো ১ হাজারে ! ১ টা পেঁপে ৫ হাজারে ! ভক্তদের বিক্রি করতেন গুরমীত রাম রহিম !

৪০ হাজার বছর আগে গুহামানবের তৈরি সিংহ-মানবের মূর্তিই কি বৈদিক ঋষির সন্তান ? http://banglalive.com/this-sage-married-his-own-granddaughter/

রাক্ষস বংশের রাবণ-কুম্ভকর্ণ-বিভীষণ-শূর্পনখার বাবা এবং ঠাকুরদা দুজনেই কিনা ছিলেন প্রাজ্ঞ ঋষি http://banglalive.com/this-sage-is-the-grandfather-of-rakshasraj-ravana/

অন্তঃসত্ত্বা পুত্রবধূর গর্ভ থেকে ভেসে আসছে শিশুকণ্ঠে বেদপাঠ ! শুনতে পেলেন ঋষি  http://banglalive.com/the-cold-war-between-sage-vashitha-king-viswamitra/

ব্রহ্মার বীর্য পড়েছিল জ্বলন্ত অঙ্গারে, তার থেকেই আবির্ভূত হলেন অঙ্গীরস বা অঙ্গীরা http://banglalive.com/who-was-sage-angira/

ঋষিপত্নীর সতীত্বের পরীক্ষা নিতে এসে ত্রিদেবকে জন্মাতে হল এই ঋষির পুত্র হয়েই http://banglalive.com/brahma-vishnu-shiva-were-born-as-sons-of-rishi-atri/

তাঁর শাপে ব্রহ্মা নরলোকে পুজো পান না‚ বিষ্ণুকে জন্ম নিতে হয় নানা অবতারে‚ শিব পূজিত হন লিঙ্গরূপে http://banglalive.com/why-is-rishi-bhrigu-famous-in-hindu-mythology/

NO COMMENTS