তিনি রাজকুমারিদেরও রাজকুমারি | অকালপ্রয়াণের কুড়ি বছর পরেও ব্রিটিশ রাজ পরিবারের সবথেকে বেশি আলোচিত নাম | প্রিন্সেস‚ ডাচেজ‚ হার হাইনেস‚ কোনও উপাধি দরকার নেই তাঁর | যথেষ্ট  ডায়ানা নামটাই |

# ১৯৬১-র ১ জুলাই জন্ম ইংল্যান্ডের নরফোকে | মাত্র সাত বছর বয়সে বিচ্ছেদ বাবা মায়ের | তাঁর কাস্টডি পেয়েছিলেন বাবা জন স্পেনসার |

# পরবর্তীকালে বাবা আর্ল উপাধি পেলে মেয়ের পরিচয় হয় লেডি ডায়ানা | সরাসরি ব্রিটিশ রাজপরিবারের না হলেও ডায়ানা পরিচিত ছিলেন এই রাজবংশের সঙ্গে |

# তাঁর ঠাকুমা ও দিদিমা দুজনেই ছিলেন কুইন মাদার‚ কুইন এলিজাবেথের লেডিজ ইন ওয়েটিং | অর্থাৎ বিশেষ সহচরী | একমাত্র অভিজাত বংশের মেয়েরাই এই সুযোগ পেতেন |

# শৈশবে হোম স্কুলিং এর পরে পড়াশোনা নামী গার্লস বোর্ডিং স্কুলে | তবে লেখাপড়ায় একদমই ভাল ছিলেন না | খুব ভাল নাচতে পারতেন | আর পারতেন দুর্দান্ত পিয়ানো বাজাতে |

# ডায়ানার দিদি লেডি সারাহ-র সঙ্গে প্রেম করছিলেন প্রিন্স চার্লস | সে সময় প্রথম দেখা ডায়ানার সঙ্গে | তখন ডায়ানা ১৬ | প্রিন্স চার্লস ২৮ | এরপর সারাহ থেকে ডায়ানায় মন বসাতে বেশি সময় নেননি যুবরাজ |

# ১৯৮১-র ৬ ফেব্রুয়ারি চার্লস প্রোপোজ করেছিলেন ডায়ানাকে | তবে তাঁদের এনগেজমেন্ট গোপন রাখা হয় বেশ কিছুদিন |

# ১৪ টা সোলিতেয়ার হিরে এবং একটি ব্লু সেলন সাফ্যায়ার | খোদাই করা প্ল্যাটিনামের আংটিতে | এটাই ছিল লেডি ডায়ানার এনগেজমেন্ট রিং | এখন শোভা পায় তাঁর পুত্রবধূ কেটে মিডলটনের অনামিকায় |

# তিনিই প্রথম ব্রিটিশ নারী যিনি রাজ পরিবারের উত্তরাধিকারের স্ত্রী হন | বিয়ের আগে প্লে স্কুলে পড়াতেন | এটাও বিরল | তাঁর আগে কোনও ব্রিটিশ যুবরানি বিয়ের আগে চাকরি করেননি |

# এনগেজমেন্টের পরে চাকরি ছেড়ে দেন ডায়ানা | এনগেজমেন্টে কুইন মাদার দিয়েছিলেন হিরে আর স্যাফায়ারের ব্রোচ |

# লন্ডনের সেন্ট পলস ক্যাথিড্রালে ১৯৮১-র ২৯ জুলাই হয় চার্লস-ডায়ানার রূপকথার বিয়ে | রাজপথে ভিড় করেছিলেন ৬ লক্ষ মানুষ | টেলিভিশনে বিয়ের সম্প্রচার দেখেন বিশ্বের ৭৫০ মিলিয়ন দর্শক |

# ওই বছরেই অন্তঃসত্ত্বা হন প্রিন্সেস ডায়ানা | গর্ভাবস্থার তিন মাসে তিনি সিঁড়ি দিয়ে পড়ে গিয়েছিলেন | আহত হলেও অক্ষত ছিল গর্ভস্থ শিশু |  ১৯৮২-র ২১ জুন জন্ম বড় ছেলে প্রিন্স উইলিয়ামের | ১৯৮৪-র ১৫ সেপ্টেম্বর জন্ম ছোট ছেলে প্রিন্স হ্যারির |

# বিয়ের পাঁচ বছরের মধ্যেই স্পষ্ট চার্লস-ডায়ানা দূরত্ব | দীর্ঘ টালবাহানার পরে ডিভোর্স চূড়ান্ত হয় ১৯৯৬-র ২৮ আগস্ট | 

#  বিবাহবিচ্ছেদের পরে ডায়ানার ক্ষণস্থায়ী সম্পর্ক ছিল ব্রিটিশ-পাক চিকিৎসক হসনত খানের সঙ্গে | তারপর সম্পর্ক মধ্যপ্রাচ্যের ধনকুবের ডোডি আল ফায়েদের সঙ্গে | তাঁর জন্য কয়েকশো কোটির বিলাসতরী কিনেছিলেন ডোডি |

# ১৯৯৭-এর ৩১ অগাস্ট প্যারিসের পঁ দে লালমা টানেলে ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনায় পড়ে ডায়ানার গাড়ি | তাঁর সঙ্গে ছিলেন প্রেমিক ডোডি আলফায়েদও | পাপারাজ্জিদের হাত থেকে বাঁচতে দ্রুতগতিতে ছুটতে থাকা গাড়ি দুর্ঘটনার শিকার হয় | প্রাণ হারান ডোডি-ডায়ানা দুজনেই | 

# ডায়ানার শেষকৃত্য টেলিভিশনে দেখেছিলেন বিশ্বের আড়াই বিলিয়ন দর্শক | এখনও অবধি এটাই ইউনাইটেড কিংডমের মোস্ট ভিউড টেলিকাস্ট |

# তাঁর উপাধি  প্রিন্সেস অফ ওয়েলস পরিচয়ে এতই বিখ্যাত ছিলেন ডায়ানা‚ যুবরাজ চার্লসের দ্বিতীয় স্ত্রী ক্যামিলা পার্কার এই উপাধি গ্রহণ না করে ব্যবহার করেন  ডাচেজ অফ কর্নওয়েল পরিচয় | 

আরও পড়ুন:  অতীতে ধর্ষিতা বিষকন্যাদের কাজ ছিল রাম রহিমের গুহায় নিত্যনতুন নিষ্পাপ সুন্দরীদের পাঠানো

NO COMMENTS