ঘরে ঘরে এখন সদ্যোজাতরা অভিনন্দন

অভিনন্দনের দেশপ্রেম ও সাহসিকতাকে একেবারে অন্যভাবে সম্মান জানাতে একাধিক দম্পতি নিজেদের সদ্যোজাত সন্তানের নামকরণ করছেন ‘অভিনন্দন’। এর আগে পাক যুদ্ধবিমান নিকেশকারী ভারতীয় যুদ্ধবিমান ‘মিরাজ ২০০০’-এর নামে রাজস্থানের আজমীরের এক সেনা দম্পতি তাঁদের পুত্র সন্তানের নাম রেখেছিলেন মিরাজ। আর এবার খোদ যুদ্ধের নায়কের নামে নামকরণ করছেন বেশকিছু দম্পতি। ডওসার নিহালপুরের বাসিন্দা ছাব্বিশ বছর বয়সী ভিমলেশ বেন্দারা স্থানীয় একটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে একটি ফুটফুটে শিশুসন্তানের জন্ম দেন গত শুক্রবার। আর সেইদিনই পাক কবল থেকে মুক্ত হয়ে ভারতের মাটিতে পা রেখেছিল বায়ুসেনার উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমান। তাঁর প্রতি শ্রদ্ধা জানাতেই ভিমলেশের পরিবার নবজাতকের নাম রাখেন অভিনন্দন।

গত এক সপ্তাহ ধরে যেভাবে সংবাদমাধ্যমগুলি উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানের অবস্থার কথা তুলে ধরছিল, তাতে গোটা দেশ পাকিস্তানের নিন্দায় সরব হয়ে উঠেছিল। আর পাঁচজন দেশবাসীর মতো এই ঘটনার দ্বারা প্রভাবিত হয়েছিলেন ভিমলেশ বেন্দারা। তিনি তাঁর স্বামীকে জানান যে, তাঁদের যদি পুত্রসন্তান হয়, তাহলে তাঁর নাম রাখবেন অভিনন্দন। তাঁর কথায়, তিনি চান তাঁর ছেলেও অনেক নাম-যশ-খ্যাতি অর্জন করবে। একইভাবে জয়পুরের বাসিন্দা নীলম টিক্কিওয়াল এবং রবি টিক্কিওয়ালও তাঁদের সন্তানের নাম রাখেন এই বীর জওয়ানের নামে। তাঁদের কথায়, অভিনন্দন বর্তমান যেভাবে দেশের এবং তাঁর পরিবারের মুখ উজ্জ্বল করেছেন, সেইভাবে তাঁদের সন্তানও যেন তাঁদের মুখ উজ্জ্বল করেন, এটাই তাঁদের আশা।

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Please share your feedback

Your email address will not be published. Required fields are marked *

কফি হাউসের আড্ডায় গানের চর্চা discussing music over coffee at coffee house

যদি বলো গান

ডোভার লেন মিউজিক কনফারেন্স-এ সারা রাত ক্লাসিক্যাল বাজনা বা গান শোনা ছিল শিক্ষিত ও রুচিমানের অভিজ্ঞান। বাড়িতে আনকোরা কেউ এলে দু-চার জন ওস্তাদজির নাম করে ফেলতে পারলে, অন্য পক্ষের চোখে অপার সম্ভ্রম। শিক্ষিত হওয়ার একটা লক্ষণ ছিল ক্লাসিক্যাল সংগীতের সঙ্গে একটা বন্ধুতা পাতানো। 

Ayantika Chatterjee illustration

ডেট