যন্ত্রণাহীন ওয়াক্সিং কি আদৌ সম্ভব ?

1534

ওয়াক্সিং-এর কথা ভাবলেই সব থেকে প্রথমে যন্ত্রণার কথা মনে পড়ে | ওয়াক্সিং কোনওদিন পেইন-ফ্রি হবে না | কিন্তু আজ আমরা এমন কিছু টিপস দিচ্ছি যা মেনে চললে ব্যথা অনেকটা কম লাগবে |

. আপনার শরীরে যত অ্যাসিডিটি বাড়বে তত আপনার ত্বক সেনসেটিভ হয়ে যায় | ওয়াক্সিং এর আগে মদ্যপান বা কফি পান একদম নয় | ওয়াক্সিং করার আগে প্রচুর পরিমাণে জল পান করুন |

. ওয়াক্সিং-এর আগে এক্সফলিয়েট করুন | এর ফলে শরীরের মরা কোষ উঠে যাবে রোমকূপ থেকে | আর তাই হেয়ার রিমুভ করতে কম ব্যথা লাগবে |

. পিরিয়ডসের সময় বা তার এক সপ্তাহ আগে বা তার একসপ্তাহ পরে ওয়াক্সিং না করানো ভাল | এই সময় ত্বক সব থেকে বেশি সেনসেটিভ থাকে | তাই ব্যথাও এই সময় সব থেকে বেশি পাবেন | ঋতুচক্রের দু সপ্তাহ আগে বা দু সপ্তাহ পরে ওয়াক্সিং করুন |

. ওয়াক্সিং এর সময় শান্ত থাকার চেষ্টা করুন | বেশি চিৎকার করলে আপনার ব্যথা কিন্তু বেড়ে যাবে | ওয়াক্সিং স্ট্রিপের ওপর ওয়াক্স লাগানো হলে জোরে শ্বাস নিন | স্ট্রিপটা তোলার সময় শ্বাস ছেড়ে দিন | দম আটকে রাখলে কিন্তু বেশি কষ্ট পাবেন |

. দেখবেন দুটো ওয়াক্সিং সেশনের মধ্যের সময় যেন খুব বেশি ব্যবধান না থাকে | মনে রাখবেন যত বেশি হেয়ার গ্রোথ হবে তত কিন্তু বেশি ব্যথা লাগবে | সব থেকে ভাল হয় সপ্তাহে যদি একবার করে ওয়াক্সিং করতে পারেন তো | না হলে মাসে অন্তত দুবার ওয়াক্সিং করুন |

. ওয়াক্সিং করানোর একঘন্টা আগে একটা অ্যাসপিরিন বা ব্রুফেন খেতে পারেন | এতে আপনার নার্ভ শান্ত হবে | ব্যথাও অনেক কম লাগবে | আন্ডার আর্ম বা বিকিনি এরিয়ার মত নরম জায়গার ওয়াক্সিং করানোর আগে ওষুধ খেলে উপকার পাবেন |

. ওয়াক্সিং করানোর আগে গরম জলে চান করুন | এতে আপনার রোম কূপ বড় হয়ে যাবে আর রোম অনেক নরম থাকবে | ঠান্ডা জলে চান করলে কিন্তু এর উল্টো এফেক্ট হবে |

Advertisements

2 COMMENTS

  1. Ami anek rokom rashes er khetre fitkiri (alum) use Kori. Khub I upokari. Apnio try korte paaren. Aloe Vera gel o khub bhalo.

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.