সূর্যদেবের বিরুদ্ধে মামলা ঠুকলেন প্রচণ্ড গরমে নাকাল যুবক

1961

মামলাবাজ বলে একটা কথা প্রচলিত আছে। কিছু মানুষ সুযোগ পেলেই আদালতে গিয়ে কারও না কারও বিরুদ্ধে মামলা করে দেন। মধ্যপ্রদেশের শাজাপুরের বাসিন্দা শিবপাল সিংহ যাদবও হয়তো সেই দলেই পড়েন। এই যুবকটি সম্প্রতি সূর্যের বিরুদ্ধে এফআইআর করতে শাজাপুরের থানায় গিয়ে হাজির হয়েছিলেন। এমন অভিনব অভিযোগে হতভম্ব পুলিশ প্রশাসন।

শিবপালের অভিযোগের বয়ান মোটামুটি এরকম— ব্রহ্মাণ্ড নিবাসী শ্রী সূর্যদেব মানুষ, পশুপাখি ও গাছপালার উপরে অত্যাচার করছেন উপর থেকে অগ্নিবর্ষণ করে। শুনতে যতই অবিশ্বাস্য লাগুক, ঠিক এমন অভিযোগই তিনি দায়ের করার অনুরোধ জানিয়েছেন পুলিশের কাছে। তিনি জানিয়েছেন, বাড়তে থাকা তাপমাত্রার কারণে তাঁর শারীরিক ও মানসিক শান্তি নষ্ট হয়েছে। তাঁর দাবি, অবিলম্বে প্রয়োজনীয় আইনি পদক্ষেপ করা হোক অভিযুক্তের বিরুদ্ধে।

প্রসঙ্গত, শাজাপুরের তাপমাত্রা রেকর্ড ছুঁয়েছে। সাতচল্লিশ ডিগ্রি সেলসিয়াসের উপরে পারদ চড়েছে। ফলে দেশের অন্যান্য অঞ্চলের মতো এখানেও জনজীবন অসহনীয় হয়ে উঠেছে। গোটা দেশ জুড়েই চলছে সূর্যের বিরুদ্ধে মজাদার সব মিম ও জোকস শেয়ার। কিন্তু সেই সব কিছুকে ছাপিয়ে গিয়েছে শিবপালের কীর্তি।

তবে এমন ঘটনা এই প্রথম নয়। এ বছরের ফেব্রুয়ারিতে বিহারের আইনজীবী চন্দনকুমার সিংহ ভগবান রামের বিরুদ্ধে একটি মামলা করেন। তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল, সীতার সঙ্গে অন্যায় করেছেন রাম। তাই তাঁর বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ করা হোক।

চন্দনকুমার বা শিবপালের ঘটনা থেকে সিনেমা-ভক্তদের মনে পড়ে যেতে বাধ্য অক্ষয়কুমার, পরেশ রাওয়াল অভিনীত ‘ও মাই গড’ ছবিটির কথা। সেখানে পরেশ অভিনীত চরিত্রটি ছিল এক ব্যবসায়ীর। ভূমিকম্পের ফলে তাঁর দোকান ভেঙে যাওয়ার ফলে তিনি ভেঙে পড়েন। শেষমেশ আদালতের দ্বারস্থ হয়ে মামলা করেন ঈশ্বরের বিরুদ্ধে। পরে তাঁর সঙ্গে দেখা হয় শ্রীকৃষ্ণের। অক্ষয়কুমার অভিনয় করেছিলেন ভগবান শ্রীকৃষ্ণের ভূমিকায়।

রুপোলি পর্দায় যা দেখা গিয়েছিল, এবার তারই দেখা মিলল বাস্তব দুনিয়াতেও। প্রমাণ করে দিল, কল্পনায় যা হয় তা বাস্তবে কখনও হবে না সেকথা জোর দিয়ে বলা যায় না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.