বি-টাউনের অন্যতম সফল দম্পতিদের মধ্যে অজয় দেবগণ আর কাজল-এর নাম বেশ ওপরের দিকেই থাকবে | মেয়ে নাইশা আর ছেলে যুগকে নিয়ে সুখের সংসার ওঁদের | ১৯৯৯ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি‚একেবারে মারাঠী রীতিনীতি মেনে বিয়ে হয় ওঁদের | কিন্তু ওঁদের প্রেম বা বিয়ে সম্পর্কে খুব একটা বেশি কিছু জানা যায় না | তবে সম্প্রতি অজয় ওঁর বিয়ে সম্বন্ধে বেশ একটা মজার ঘটনা জানিয়েছেন |

Banglalive

পিঙ্কভিলা ওয়েবসাইটকে দেওয়া সাক্ষৎকারে অজয়কে প্রশ্ন করা হয় ওঁর আর কাজলের কীভাবে আলাপ হয় সেই নিয়ে | উত্তরে উনি বলেন  একটা ছবির সেটে | ভীষণ বোরিং গল্প | আসলে আমাদের কোনো গল্পই নেই | আমি সাধারণত খুব একটা কারুর সঙ্গে কথা বলা পছন্দ করিনা | তাই কাজল আমাকে অহংকারী ভাবত | প্রথমদিকে আমরা খুব একটা কথা বলতাম না | তারপর ধীরে ধীরে আমরা কথা বলতে লাগলাম |

অজয় আরো যোগ করেন আমরা কেউ কাউকে প্রপোজ করিনি | আমাদের মধ্যে বন্ধুত্ব হয় তারপর একদিন অনুভব করলাম আমরা একে অপরের সঙ্গে প্রেম করছি | হঠাৎ একদিন বিয়ে করার সিদ্ধান্ত নিলাম | আমি খুব ধূমধাম করে বিয়ে করতে চাইনি | তাই আমার বেডরুম থেকে বেরিয়ে ছাদে গিয়ে বিয়ে করলাম তারপর আবার বেডরুমে ফিরে গেলাম | 

আগে অন্য একটা সাক্ষাৎকারে কাজল জানিয়েছিলেন কেন উনি সেই সময় ওঁর থেকে কম সফল অজয়কে বিয়ে করেন | কাজলের কথায় সেই সময় আমি সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম | ততদিনে আমার ইন্ডাস্ট্রিতে সাড়ে আট নয় বছর কাজ করা হয়ে গেছে | তাই আমি বিয়ে করে থিতু হতে চাইছিলাম | সেই সময় আমি বছরে ৪-৫ট ছবি করতাম | আমি শুধুমাত্র অভিনয় করতে বা ওইভাবে জীবন কাটাতে চাইছিলাম না | আমি সিদ্ধান্ত নিলাম যে বিয়ের পর আমি বছরে একটার বেশি ছবিতে অভিনয় করব না | আমি জানতাম এই সিদ্ধান্তে আমি অনেক বেশি খুশি থাকব |

আরও পড়ুন:  মৃত্যুর আগেও শ্রীদেবীর সঙ্গে কথা হয়েছিল মনীশ মালহোত্রার!?

NO COMMENTS