সেজে উঠুন এই বসন্তেই

355

বসন্ত এসে গেছে। অথচ, মন ভালো নেই তিতলির!
আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে সারা দিন এই ফেশ প্যাক তো সেই ফেশ প্যাক লাগায়। কিন্তু কিছুতেই ওর চোখের পাশের লাইনগুলো দূর হচ্ছে না।
কে বলবে ২৫? দেখলে মনে হয় যেন ৩৫!

তিতলির মতো সমস্যা অনেকেরই। মুখে অবাঞ্ছিত এই রেখা, যাকে বলা হয় বলিরেখা। বলিরেখা মানেই ত্বকে বয়সের ছাপ। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কমতে
থাকে আমাদের ত্বকের টানটান ভাব। মুখের চামড়া কুচকে যাওয়া, ভাঁজ পড়া, চোখের নিচে ভাঁজ পড়া, নির্জীব ত্বক, এগুলোই বয়স বেড়ে যাওয়ার লক্ষণ।
কিন্তু অকালে বলিরেখা দেখা দিলে সেটা আপনার সৌন্দর্য্য নষ্ট করে। তাহলে এর থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায়?

ঘরোয়া পদ্ধতির পাশাপাশি ব্যবহার করতে হবে অ্যান্টি-এজিং ক্রিম। বেশিরভাগ মানুষের ধারনা অ্যান্টি-এজিং ক্রিম ৩০ এর পরে ব্যবহার করতে হয়।
কারণ এর আগে তো আর বয়সের ছাপ আসে না। কিন্তু একথা একেবারেই ঠিক নয়। এজিং ২০ বছর বয়সেও দেখা দিতে পারে। বিশেষ করে মেয়েদের। বিভিন্ন গবেষনায় দেখা গেছে যে, পুরুষের চেয়ে মহিলাদের মুখে এবং ঠোঁটের চারপাশে বেশি বলি রেখা পড়ে। ঠোঁটের চারপাশে এরকম বলি রেখা কে Perioral Wrinkle বলা হয়। তাই সতর্কতা অবলম্বন অবশ্যই করতে হবে করতে হবে। এখন বাজারে যে সমস্ত অ্যান্টি-এজিং ক্রিম রয়েছে, তার মধ্যে Pond’s Age Miracle এর নাম বিশেষ ভাবে উল্লেখযোগ্য। ২৫ বছর বয়সের পর থেকে যে কেউ এটি ব্যবহার করতে পারেন। Pond’s Age Miracle এর ভাণ্ডারে বিভিন্ন ধরনের ক্রিম রয়েছে। সেই সমস্ত ক্রিমগুলিকে আপনার ডেইলি কেয়ারের অন্তর্ভুক্ত করতে পারেন।

বলিরেখা দূর করার ক্ষেত্রে ঘরোয়া পদ্ধতিও খুব কার্যকরী । এই যেমন-

১। ডিমের কুসুমটি বাদ দিয়ে সাদা অংশটি খুব ভালো করে ফেটিয়ে নিয়ে আপনার ত্বকের ম্যাসাজ করতে পারেন। তারপর ১৫ থেকে ২০ মিনিট রেখে দিন যেন তা শুকিয়ে যায়। এরপর জল দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। ডিমের সাদা অংশে যে ভিটামিন বি এবং ভিটামিন ই আছে তা আপনার ত্বকের যৌবন ফেরাতে সাহায্য করবে।

২। লেবুর রস মুখে লাগাতে পারেন। লেবু রসের অ্যাসিডিটি আপনার ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করবে এবং বলিরেখা কমিয়ে তুলতে সাহায্য করবে।
পাকা কলাও ত্বকের বলিরেখা দূর করতে সাহায্য করে। অফিস থেকে ফিরে, বাড়ির নানা কাজের ফাঁকে, রান্না করতে করতে কিংবা টিভি দেখতে
দেখতেও লাগিয়ে নিতে পারেন এই প্যাক। এর জন্য একটি পাকা কলাই যথেষ্ট। কলা পেস্ট করে ২০ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। তারপর ঠাণ্ডা জলে মুখ ধুয়ে নিন।

৩। অ্যালোভেরাও একটি উপকারি উপাদান যা ত্বকের বলিরেখা কমাতে সাহায্য করে। অ্যালোভেরা জেল ত্বকের বলিরেখার উপরে লাগিয়ে রাখুন।

৪। রয়েছে আরও নানা ঘরোয়া প্যাক। ২ টেবিল চামচ কমলার রস, ১ টেবিল চামচ মধু, চার টেবিল চামচ বেসন দিয়ে একটি মিশ্রণ তৈরি করুন। এই রকম মিশ্রণ বানিয়ে সপ্তাহে ৪-৫ বার মুখে ব্যবহার করুন। এটি আপনার ত্বক থেকে বলিরেখার চিহ্ন দূরকরতে সাহায্য করবে।

বলিরেখা দূর করতে সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন জীবনযাপনের ক্ষতিকর অভ্যাসগুলো পরিবর্তন করা। তা না হলে প্যাক বা ক্রিম দিয়েও কাজ হবে না। ত্বকের ডেইলি কিছু যত্ন আপনাকে নিতে হবে। যেমন –

১। ক্লিনজিং করুন। প্রতিদিন বাইরে থেকে ফিরে ভালোভাবে ক্লিনজার দিয়ে মুখ পরিষ্কার করতে হবে।

২। ফেসওয়াশ ব্যবহার করুন। ফেসওয়াশ দিয়ে মুখ ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিন। মুখে ফেসওয়াশ লাগানোর সময় আপনার চোখের পাশের জায়গাগুলো বাদ দিন। এরপর ভালোভাবে মুখে কয়েকবার ঠাণ্ডা জলের ঝাপটা দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন।

৩। টোনার ব্যাবহার করুন। টোনার আপনার মুখে ময়লা এবং তেল গোড়া থেকে তুলে দিতে সাহায্য করবে যা সাবান অথবা ফেসওয়াশ সব সময় পারে না। একটু তুলার বল নিয়ে এতে টোনার ভিজিয়ে মুখে হালকা করে ঘষে ঘষে ময়লা তুলে নিন। বিশেষ করে কপাল এবং নাকের আশেপাশের জায়গাগুলোকে বাদ দেবেন না। কারণ ওইসব জায়গায় তেল এবং ময়লা বেশী জমে থাকে। ত্বক শুষ্ক হলে টোনার দিয়ে মুখ পরিষ্কার করে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে। শুষ্ক ত্বকে প্রতি দিন তিনবার ক্রিম লাগানো উচিত। আর যাঁদের ত্বক তৈলাক্ত তাঁরা অ্যাসট্রিনজেন্ট দিয়ে মুখ পরিষ্কার করবেন। এরপর ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে।

৪। প্রতিদিন অবশ্যই ত্বককে মশ্চারাইজার করুন। সকালে এবং রাতে মুখ ধোয়ার পরে মশ্চারাইজার ব্যবহার করুন। এটি আপনার ত্বকের ড্যামেজকে নিয়ন্ত্রণ করে। আপনার মুখে ভাঁজ পরা থেকে ত্বককে রক্ষা করবে। দিনের বেলা Ponds এর Cell Regen ™ ব্যবহার করতে পারেন। ইন্টেলিজেন্ট প্রো-সেল কমপ্লেক্স ™ এবং SPF 15 যুক্ত এই মশ্চারাইজার ত্বকের সূক্ষ্ম লাইন, Wrinkles এবং বয়সের দাগ দূর করে। Ponds- এর দাবি, সাত দিনের মধ্যে এর ফল ধরা পড়বে ।

৫। সপ্তাহে একদিন স্ক্রাব ব্যবহার করুন। সপ্তাহে একদিন আপনার ত্বকে স্ক্রাব ব্যবহার করুন। স্ক্রাব ব্যবহারের সময় ত্বককে জোরে ঘষবেন না। স্ক্রাবারের জন্য দুই চামচ মধুর সঙ্গে এক চামচ চিনি মিশিয়ে মিশ্রন তৈরি করে ব্যবহার করুন। স্ক্রাব মুখে দিয়ে ৭ থেকে ১০ মিনিট মুখে ভালোভাবে ম্যাসাজ করে কুসুম কুসুম গরম জলে মুখ ধুয়ে নিন।

৬। বাইরে বের হওয়ার আগে সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন। আপনার ত্বককে অবশ্যই সুর্যের ইউভি রশ্মি থেকে রক্ষা করুন। এজন্য প্রতিদিন রোদে যাওয়ার আগে অবশ্যই সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে হলে। কারণ ত্বক রোদে পুড়লে খুব সহজে মুখে বলিরেখা পড়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই বাইরে যাওয়ার আগে মুখে এবং গলার এস পি এফ যুক্ত সানস্ক্রিন ব্যবহার করুন। Pond’s Age Miracle এর এস পি এফ যুক্ত সানস্ক্রিন ব্যবহার করতে পারেন। এই সানক্রিম বয়সের ছাপকে তো দূর করবেই পাশাপাশি ত্বককে সুর্যের ইউভি রশ্মি থেকে রক্ষা করবে।

এখন প্রশ্ন হল, এ সবই তো দিনের জন্য। রাতে ঘুমানোর আগে ত্বকের যত্ন নেবেন কিভাবে ?
ঘুমানোর আগে অবশ্যই মেকআপ তুলে নিতে ভুলবেন না। আর ক্লেনজার দিয়ে ত্বক পরিষ্কার নিন। পরে ফেস ওয়াশ দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। মুখে-গলায় অ্যান্টি-রিংকেল ক্রিম ব্যবহার করতে হবে। Pond’s Age miracle Deep Action Night Cream লাগাতে পারেন। এটি একটি অ্যান্টি-এজিং ময়শ্চারাইজার ।
এই ময়শ্চারাইজার সমৃদ্ধ নাইট ক্রিম সারাদিনের ক্ষতিগ্রস্ত চামড়ার মেরামত করে সেলগুলিকে আবার উজ্বল করে দেয়। এই অ্যান্টি-এজিং ময়শ্চারাইজার
ইন্টেলিজেন্ট প্রো-সেল কমপ্লেক্স ™, CLA এবং কোলাজেন সমৃদ্ধ, যা ত্বককে করে নরম এবং সুন্দর। তখন আপনি ত্বককে ভাল না বেসে থাকতেই পারবেন না।

চোখে সবার আগে ভাঁজ বা বলিরেখা পড়ে। তাই প্রতিদিন রাতে আই জেল বা ক্রিম ব্যবহার করতে ভুলবেন না। বাজারে নানা ব্র্যান্ডের অ্যান্টি-রিংকেল আই ক্রিম রয়েছে। Pond’s Age Miracle Eye Cream- ও ব্যবহার করতে পারেন। এই ক্রিমটি প্রতিদিন রাতে আঙুলে নিয়ে আলতো করে চোখের চারপাশে মালিশ করতে হবে। এই ক্রিমটি প্রো-সেলকমপ্লেক্স ™ এবং CLA সমৃদ্ধ যা চোখের বলিরেখা দূর করতে সাহায্য করে।

যারা চাকুরি করে তাদের বলব, প্রচুর জল পান করতে হবে। প্রতিদিন অন্তত আট গ্লাস জল খান। পরিমান মতো জল খেলে আপনার শরীরের স্বাভাবিক কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে। হার্বাল চা পান করুন। খাদ্য তালিকায় রাখুন প্রচুর শাক-সবজি, ও তাজা ফল-মূল। ব্রকলি ও গাজর ত্বকের ইলাস্টিসিটি বাড়াতে সাহায্য করে। তাই খাদ্য তালিকায় ব্রকলি ও গাজর রাখুন | এড়িয়ে চলুন জাঙ্কফুড । নিয়মিত শরীরচর্চা করুন।

সারাদিনের ব্যস্ততার পর রাতে এবং ছুটির দিনগুলোতে একটু সময় বের করে ত্বকের যত্ন নিন। আর Pond’s Age Miracle এর সম্ভার থেকে আপনার পছন্দের ক্রিমটিকে সামিল করুন ডেইলি রূপটানের রুটিনে। দেখবেন, বয়স ১০ বছর কমে গেছে। এই বসন্তেই তাক লাগিয়ে দিন কাছের মানুষটিকে।

Advertisements

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.