প্রকাশ্যে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে যুগলের ঠাঁই শ্রীঘরে

একটু একটু ভাললাগা তৈরি হয়েছে দু’জনের মধ্যে। মনে অনুভূতি চেপে রাখতে না পেরে ব্যক্ত করাই ভাল বলে মনে করেছিলেন প্রেমিক। পরিকল্পনামাফিক করলেনও তাই। তবে নিভৃতে-নিরালায় নয়, একেবারে জনসমক্ষেই প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে বসলেন।

শপিং কমপ্লেক্সে এক প্রেমিকের তাঁর প্রেমিকাকে প্রেম প্রস্তাব দেওয়ার ঘটনা দেখে রীতিমতো ভিড় জমে গিয়েছিল সেখানে। আগ্রহী মানুষ প্রেম নিবেদনের সুন্দর মুহূর্তের সাক্ষী হওয়ার জন্য অধীর আগ্রহে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। যুগলের এহেন কীর্তিতে বেশ মজাই পেয়েছেন সেখানে উপস্থিত মানুষ, তা স্পষ্ট। কেউ কেউ আবার এই দৃশ্যকে ভিডিও রেকর্ডিংও করেছিলেন। আর এর পরেই প্রকাশ্যে তাঁদের প্রেম নিবেদনের ঘটনা ভাইরাল হয়ে যায়। ইরানি যুগলের এই ভাইরাল ভিডিও মানুষের মুখে মুখে। ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিও-তে দেখা গিয়েছে, প্রেমিকার হাতে আংটি পরিয়ে দিচ্ছেন প্রেমিক, আর প্রেমিকাও তাঁকে জড়িয়ে ধরে নিজের সম্মতি প্রকাশ করছেন।

এতদূর পর্যন্ত সবকিছু ঠিকই ছিল। কিন্তু তারপরের ঘটনাতেই বিস্মিত হয়েছেন নেটিজেনরা। কারণ ইরানি যুগলের প্রকাশ্য প্রেম-নিবেদনের ঘটনা ভাইরাল হতেই তাঁদের গ্রেফতার করেছে পুলিশ। যুগলের সঠিক পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। তাঁদের গ্রেফতারের কারণ হিসেবে ইরান পুলিশ জানিয়েছে, এইভাবে প্রকাশ্য রাস্তায় প্রেম নিবেদন করা ইসলাম সংস্কৃতির বিরোধী । তাঁদের কথায়, প্রকাশ্যে এইভাবে বিবাহ বা প্রেমের প্রস্তাব দিলে তা তরুণ প্রজন্মের উপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলতে পারে। তাই এই ধরণের কাজ আইনের চোখে অপরাধ হিসেবে গণ্য করা হবে। আরকের ডেপুটি পুলিশ প্রধান মোস্তাফা নৈরজির কথায়, প্রকাশ্য রাস্তায় যে  শালীনতা বজায় রাখা উচিত, সেই সীমা লঙ্ঘন করেছেন ওই যুগল।

তবে গ্রেফতার করা হলেও ব্যক্তিগত জামিনে মুক্তি পান ওই যুগল। কিন্তু এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছেন নেটিজেনরা। তাঁদের কথায়, জনসমক্ষে তাঁরা এমন কিছু অশালীন কাজ করেননি যার জন্য তাঁদের হাজতবাস করানো যেতে পারে ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here