সোশ্যাল মিডিয়ায় এটা শুনে শাকিরার কণ্ঠ বলে বিশ্বাস করেছেন নাকি ?

সোশ্যাল মিডিয়ায় এটা শুনে শাকিরার কণ্ঠ বলে বিশ্বাস করেছেন নাকি ?

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

গত কয়েকদিন ধরে শাকিরার হিন্দি উচ্চারণে মুগ্ধ সোশ্যাল মিডিয়া ! সূত্রপাত ইউটিউবে | তারপর ফেসবুক‚ হোয়াটস অ্যাপ‚ কোথায় নেই সেই ক্লিপ ?

অডিও ক্লিপে শোনা যাচ্ছে দুটি বিখ্যাত গণসঙ্গীত | একটি পল রোবসনের ‘Ol’ Man River’ এবং আর একটি ভূপেন হাজারিকার গঙ্গা বেহতি হো কিঁউ | দাবি করা হচ্ছে সে সব গেয়েছেন শাকিরা !

শ্রোতার দল তো উচ্ছ্বসিত লাতিন আমেরিকার সুন্দরী পপ গায়িকার হিন্দি উচ্চারণে |

অবাক হতে হয় ইন্টারনেট শাসিত যুগে টেক-স্যাভি নতুন প্রজন্মের অজ্ঞতায় |

অবশেষে আসল তথ্য সামনে এনেছে টাইমস অফ ইন্ডিয়া | এই দুটি গানই গেয়েছেন কলকাতার প্রখ্যাত শিল্পী পূরবী মুখোপাধ্যায় !

গত ৫০ বছর ধরে সঙ্গীত সাধনা করছেন তিনি | সংবাদমাধ্যমে জানিয়েছেন‚ ১৯৯৯ সালে প্রকাশিত হয়েছিল তাঁর মিউজিক অ্যালবাম আমরা করব জয় | রাগা মিউজিক-এর সেই অ্যালবামে পূরবীর এই গানদুটি ছিল | আবার একই পারফরম্যান্স ছিল ২০০৩ সালে মুক্তি পাওয়া এই শিল্পীর অগ্রগতির পথে মিউজিক অ্যালবামে |

মার্ক্সীয় দর্শনে বিশ্বাসী পূরবী মুখোপাধ্যায় স্বর্গীয় ভূপেন হাজারিকার সঙ্গে একই মঞ্চে গানও গেয়েছিলেন | পূরবী হেমাঙ্গ বিশ্বাসের গুণমুগ্ধ | তাঁর কথায়‚ প্রখ্যাত এই গণসঙ্গীত শিল্পী এখন বিস্মৃতির অতলে | তাঁর গান গাইছেন অনেকেই | কিন্তু তাঁকে স্বীকৃতি না দিয়ে | তাই সেখানে দাঁড়িয়ে মানুষের অজ্ঞতায় আর বিস্মিত হন না তিনি |

জয়পুর থেকে এক শ্রোতা পূরবীকে অডিও ক্লিপটা পাঠিয়েছেন | আরও অনেকেই তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করে এই পুকুরচুরির প্রতিবাদে সামিল হতে বলেছেন |  প্রাথমিক পদক্ষেপ হিসেবে ইউটিউব কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করে অডিও ক্লিপটি সরানো হয়েছে সেখান থেকে |

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply

Handpulled_Rikshaw_of_Kolkata

আমি যে রিসকাওয়ালা

ব্যস্তসমস্ত রাস্তার মধ্যে দিয়ে কাটিয়ে কাটিয়ে হেলেদুলে যেতে আমার ভালই লাগে। ছাপড়া আর মুঙ্গের জেলার বহু ভূমিহীন কৃষকের রিকশায় আমার ছোটবেলা কেটেছে। যে ছোট বেলায় আনন্দ মিশে আছে, যে ছোট-বড় বেলায় ওদের কষ্ট মিশে আছে, যে বড় বেলায় ওদের অনুপস্থিতির যন্ত্রণা মিশে আছে। থাকবেও চির দিন।