নির্দ্বিধায় বলা যাতে পারে এক জমাটি সন্ধ্যা। সম্পূর্ণ রাজনৈতিকও নয়,আবার ফিল্মিও নয়। তবে দিনটা যে শুধু তাঁদেরই ভাল কেটেছে তা নয়,সোশ্যাল মিডিয়ার ভাইরাল হওয়া কিছু ছবি এও প্রমাণ করে দেয় ভক্তরাও একইভাবে দূর থেকে পছন্দ করেছেন তাঁদের। সেলেবদের আবদারে একসঙ্গে সেলফি নিতেও ভোলেননি প্রধানমন্ত্রী। ইতিমধ্যেই প্রচুর ছবি ও ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে নেট দুনিয়ায়।

করণ জোহর, রণবীর সিং, রণবীর কপূর, আয়ুষ্মান খুরানা, বরুণ ধাওয়ন, রাজকুমার রাও, একতা কপূর-সহ বলিউডের বেশ কয়েক জন উজ্জ্বল তারকার সঙ্গে সুন্দর সময় কাটালেন মোদী। ২২ ডিসেম্বর ‘বলিউডের দিল কি বাত’ শুনে সিনেমার টিকিটের দাম কমিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী। সেই মতো, একশো টাকা পর্যন্ত সিনেমার টিকিটের দামের উপর জিএসটি ১৮ শতাংশ থেকে ১২ শতাংশ করে দেন তিনি। আর সেই জন্যই তাঁকে ধন্যবাদ জানাতে দল বেঁধে হাজির তারকারা। 

Banglalive

এছাড়াও হিন্দি ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি কীভাবে অর্থনৈতিক সাফল্য দিতে পাড়ছে দেশকে,এবং পরবর্তিকালে এই ধরনের যুব প্রতিভাবান অভিনেতা অভিনেত্রীদের দ্বারা কীভাবে ইন্ডাস্ট্রির উন্নতি হচ্ছে ও পরবর্তিকালে হতে চলেছে তার প্রশংসা করতেও বাকি রাখলেন না মোদী। 

Banglalive
View this post on Instagram

Had a good meeting with popular film personalities.

Banglalive

A post shared by Narendra Modi (@narendramodi) on

নিজের ইনস্টাগ্রামে সেই কথা জানিয়ে ছবিও পোস্ট করেছেন করণ। জানিয়েছেন, ব্যস্ততার মধ্যেও যে প্রধানমন্ত্রী তাঁদের সময় দিয়েছেন, আড্ডায় বসেছেন, এর চেয়ে বড় প্রাপ্তি আর হয় না। করণের পাশপাশি রণবীর সিংও নিজের সোশ্যাল সাইটে মোদীর সঙ্গে ‘মনের মতো আড্ডা’ লিখে ছবি পোস্ট করেছেন। একতা কপূরের কথায়, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী যে কতটা সাধারণ, তাঁর সঙ্গে আড্ডা না দিলে জানা যেত না। আড্ডা শেষে প্রত্যেকেই মোদীর সঙ্গে তোলা ছবি পোস্ট করেছেন নিজেদের ইনস্টাগ্রামে। মোদীও এর উত্তরে লিখেছেন যে আমিও খুব খুশি হিন্দি সিনেমার জগতের এই নব প্রতিভাবানদের সঙ্গে দেখা করে”।
 

আরও পড়ুন:  বিশ্ব সুন্দরীর রূপ নিয়ে কী এমন 'কুৎসিত' মন্তব্য করলেন ইমরান হাসমি?

গত বছরও মোদীর সঙ্গে আড্ডায় জমায়েত হয়েছিলেন অক্ষয় কুমার, সিদ্ধার্থ রায় কপূর,অজয় দেবগণ, এবং সিবিএফসি-এর চেয়ারম্যান প্রসূন জোশী।

NO COMMENTS