টাকা বাঁচাতে বিয়েবাড়ি হাইজ্যাক করে ‘মুন্নাভাই’-এর শ্যুটিং করেছিলেন রাজকুমার হিরানি!

টাকা বাঁচাতে বিয়েবাড়ি হাইজ্যাক করে ‘মুন্নাভাই’-এর শ্যুটিং করেছিলেন রাজকুমার হিরানি!

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

এমন কোনও সিনেমাপ্রেমী পাওয়া মুশকিল যার পরিচালক রাজকুমার হিরানির ছবি দেখতে ভাল লাগে না | এই পরিচালক আমাদের ‘৩ ইডিয়টস’‚’পি কে’ এবং’সঞ্জু’-র মত ছবি উপহার দিয়েছেন |

সব কিছুর শুরু ১৬ বছর আগে যখন ‘মুন্নাভাই এমবিবিএস’ মুক্তি পায় | এই ছবির মাধ্যমে এক নতুন পরিচালকের সঙ্গে পরিচিত হয় দর্শক | এখানেই শেষ নয়, সঞ্জয় দত্তের কেরিয়ার আরও একবার উজ্জীবিত হয় এই ছবিতে অভিনয় করার পর | 

তবে আজকালকার ছবির মত মুন্নাভাই-এর বাজেট আকাশ ছোঁয়া ছিল না | ২০০৩ সালে মুক্তি পেয়েছিল এই ছবি | সেই সময় এই ছবির বাজেট ছিল ১০ কোটি টাকা | শুনতে অনেক টাকা হলেও‚ ১০ কোটি দিয়ে মুন্নাভাইয়ের মত ছবি বানানো কিন্তু বেশ বড় চ্যালেঞ্জ ছিল | তাই ছবির পরিচালক মাঝে মধ্যেই টাকা বাঁচানোর জন্য অভিনব সব উপায় বের করতেন |

একটা সাক্ষাৎকারে রাজকুমার হিরানি নিজেই একটা বেশ মজার ঘটনার কথা জানিয়েছেন যা টাকা বাঁচানোর জন্য ওঁদের করতে হয়েছিল | ছবির শেষে বেশ কয়েকটা স্টিল ছবির মন্তাজ দেখানো হয় | তার মধ্যে একটা ছবিতে দেখা যায় যে মুন্না আর ডাক্তার সুমনের অবশেষে বিয়ে হয়েছে | কিন্তু বিয়ের সেট তৈরি করতে বাড়তি বেশ কয়েক হাজার টাকা লাগতো যা বাজেটে ধরা ছিল না |

ছবির প্রডাকশনের সঙ্গে যুক্ত এক ব্যক্তি এক অভিনব বুদ্ধি বের করল | ছবির যেখানে শ্যুটিং হচ্ছিল তার ঠিক পাশেই একটা বিয়েবাড়িতে বিয়ে হচ্ছিল | সেই ব্যক্তি গিয়ে বরকর্তার সঙ্গে কথা বলে তাঁদের বিয়েবাড়িতে শ্যুটিং করার জন্য রাজি করান |

কিন্তু পরিচালক জানতেন এই কথা যদি সঞ্জয় দত্ত এবং গ্রেসি সিং জানতে পারেন তাহলে তাঁরা সেখানে গিয়ে শ্যুটিং করতে রাজি হবেন না | তাই উনি ওঁদের কিছু জানালেন না | শুধু বললেন শ্যুটিং এর পর সঞ্জয় আর গ্রেসিকে থাকতে | 

সবাই অপেক্ষা করছিলেন | এই সময় খবর পাওয়া গেল যে বিয়ে শুরু হতে দেরি হয়েছে তাই ওঁদের আরও খানিকক্ষণ অপেক্ষা করতে হবে | দেরির ফলে সঞ্জয় মদ্যপান করতে শুরু করে দেন |

একটা সময়ের পর আর ধৈর্য্য ধরতে পারলেন না রাজকুমার হিরানি | তাই উনি সঞ্জয় ও গ্রেসিকে নিয়ে সোজা বিয়েবাড়িতে ঢুকে পড়লেন | গিয়ে দেখলেন সেই মাত্র বিয়ে শেষ হয়েছে | আর সময় নষ্ট না করে সবাইকে সরিয়ে সঞ্জয় আর গ্রেসির ফ্যটো শ্যুট করা হল | অন্যদিকে বর কনেও জানতেন না তাদের বিয়েবাড়ি ব্যবহার করা হবে সিনেমার শ্যুটিং এর জন্য | তাই তারা সঞ্জয় দত্তকে দেখে বেশ অবাক হয়ে যান | পরে ঘটনাটা জানার পর নবদম্পতির সঞ্জয়ের সঙ্গে একটা ছবি তোলার ইচ্ছা হয়েছিল | কিন্তু সঞ্জয়ের মেজাজ দেখে তাদের সেই সাহস আর হয়নি |

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply

Handpulled_Rikshaw_of_Kolkata

আমি যে রিসকাওয়ালা

ব্যস্তসমস্ত রাস্তার মধ্যে দিয়ে কাটিয়ে কাটিয়ে হেলেদুলে যেতে আমার ভালই লাগে। ছাপড়া আর মুঙ্গের জেলার বহু ভূমিহীন কৃষকের রিকশায় আমার ছোটবেলা কেটেছে। যে ছোট বেলায় আনন্দ মিশে আছে, যে ছোট-বড় বেলায় ওদের কষ্ট মিশে আছে, যে বড় বেলায় ওদের অনুপস্থিতির যন্ত্রণা মিশে আছে। থাকবেও চির দিন।