মুখে বলার সাহস ছিল না‚ কাগজে লিখে বাবাকে অভিনেতা হওয়ার ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন অক্ষয় কুমার

247

সেলিব্রিটি চ্যাট শো বললেই প্রথমেই যে নামটা উঠে আসে তা হল ‘কফি উইথ করণ’ | এছাড়াও ‘রঁদেভ্যু উইথ সিমি গারেওয়াল’ ও বিখ্যাত হয়েছিল | আরও একটা সেলিব্রিটি চ্যাট শো ও কিন্তু বেশ জনপ্রিয় হয়েছিল | সেটা হলো ফারুক শেখ সঞ্চালিত ‘জিনা ইসি কা নাম হ্যায়’ | ১০০ এপিসোডের এই চ্যাট শোতে তারকারা এসে তাঁদের জীবনে বহু অজানা ঘটনা ও নানা খুঁটিনাটি সম্পর্কে আলোচনা করেছেন | তাঁদের মধ্যে একজন ছিলেন অক্ষয় কুমার | ওঁর সঙ্গে সেদিন উপস্থিত ছিলেন ওঁর বোন অলকাও | এখানেই জানা যায় সপ্তম শ্রেণীতে পড়ার সময় প্রথমবার অক্ষয় অভিনেতা হওয়ার ইচ্ছা প্রাকাশ করেছিলেন, ওঁর বাবার কাছে |

অলকার কথায় ‘দাদা ছোট থেকেই অভিনেতা হতে চেয়েছিল | কিন্তু সাহস করে তা কোনওদিন বাবাকে বলতে পারেনি | সপ্তম শ্রেণীতে পড়ার সময় পরীক্ষায় খুব কম নম্বর পেয়েছিল | বাবা প্রচন্ড রেগে গিয়ে ওকে জিজ্ঞেস করল পড়াশোনার বদলে কী করতে চায় ও | উত্তরে অক্ষয় বলেছিল, ও যা করতে চায় সেটা ও মুখে বলতে পারবে না | তাই বাবা ওকে একটা কাগজ আর পেন্সিল দিয়ে বলল লিখে জানাতে | অক্ষয় তাতে লিখেছিল ‘অভিনতা’ |’

অক্ষয়ের অভিনেতা হওয়ার ইচ্ছার কথা জানার পর ওঁর বাবা ওঁকে বুঝিয়েছিলেন ভালো করে পড়াশোনা না করলে সে কোনওদিনই অভিনেতা হতে পারবে না | অক্ষয় আরও জানান ওই সময়তে পকেট মানি জমিয়ে সেই টাকা দিয়ে স্টুডিওতে গিয়ে একটা ছবিও তুলেছিলেন উনি | ওঁর মনে হয়েছিল সেই ছবি বিভিন্ন মডেলিং এজেন্সিতে পাঠালেই তাঁরা তাকে ডাকবেন | কিন্তু সেই আশা কোনওদিন পূরণ হয়নি অক্ষয়ের |

অক্ষয়ের আসল নাম রাজীব ভাটিয়া | ওঁর জন্ম দিল্লিতে কিন্তু উনি মুম্বইয়ের ডন বোস্কো স্কুলের ছাত্র ছিলেন | অক্ষয় শো চলাকালীন জানান স্কুলে পড়ার সময় দশজন বন্ধু মিলে একটা গ্রুপ তৈরি করেছিলেন যার নাম রেখেছিলেন ‘ব্লাডি টেন’ | সবাই নাকি ওঁদের এই গ্রুপকে ভয় পেত | আর এর জন্য বেশ গর্বিত ছিল গ্রুপের সদস্যারা |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.