অলোক নাথকে পরবর্তী ছবিতে নেওয়ার জন্য ক্ষোভের মুখে অজয় দেবগণ

ভারতে #মিটু আন্দোলনের সূত্রপাত করেন তনুশ্রী দত্ত | জনপ্রিয় অভিনেতা নানা পাটেকরের বিরুদ্ধে যৌন নিগ্রহের অভিযোগ তোলেন উনি | সেই শুরু‚ এরপর বেশ কিছু অভিনেতা ও চিত্র পরিচালক যেমন সাজিদ খান‚ রজত শর্মা‚ অনু মল্লিক ও অলোক নাথের বিরুদ্ধেও যৌন হেনস্থার অভিযোগ ওঠে |

সেই সময় অজয় দেবগণ টুইট করে জানিয়েছিলেন #মিটু আন্দোলনে যে সব অভিনেতাদের নাম উঠেছে উনি তাঁদের সঙ্গে কোনদিন কাজ করবেন না | উনি লেখেন ‘#মিটু নিয়ে চারিদিকে যা হচ্ছে আমি তাতে স্তম্ভিত | আমি এবং আমার কম্পানির সবাই একজন মহিলার সম্মান রক্ষায় বিশ্বাস করি | তাই আমি বা আমার কম্পানি কোনদিনই অভিযুক্তদের সঙ্গে কাজ করবে না |’ 

কিন্তু দেখা যাচ্ছে অজয় ওঁর প্রতিশ্রুতি ভুলে ওঁর আগামী ছবি ‘দে দে প্যায়ার দে’-তে অলোক নাথকে নিয়েছেন | অলোক নাথের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ আনেন বিনিতা নন্দা | এছাড়াও সন্ধ্যা মৃদুল‚ হিমানি শিবপূরি‚ দীপিকা আমীন এবং নভনীত নিশ্চলের মত অভিনেত্রীরা ওঁর বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থারও অভিযোগ তোলেন |

এই ঘটনায় বেশ রেগে গিয়েছেন তনুশ্রী দত্ত | উনি অজয়কে মিথ্যাবাদী‚ ভন্ড এবং মেরুদন্ডহীন বলে উল্লেখ করেন | একই সঙ্গে উনি বলেন ‘এই ঘটনায় একটাই জিনিস প্রমাণ হয়‚ তা হলো বলিউডের হিরোরা আসলে জিরো |’

নিজেকে বাঁচাতে অবশ্য‚ অজয় দেবগণ বলেন যে #মিটু আন্দোলনের আগেই নাকি অলোক নাথের অংশ শ্যুট করা হয়ে গিয়েছিল |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here