এই সমস্যাগুলিতেও অনায়াসে ব্যবহার করতে পারেন টুথপেস্ট!

1747

সকালে ঘুম থেকে উঠে প্রথম যে কাজটি করা হয়, তা হল দাঁত ব্রাশ করা। এমন কোনও বাড়ি খুঁজে পাওয়া যাবে না, যেখানে এক টিউব টুথপেস্ট নেই। আপনার পছন্দের টুথপেস্ট দিয়ে দাঁত পরিষ্কার করা ছাড়া আরও অনেক কাজে খুব সহজেই ব্যবহার করা যায় জানেন কি! নানান কাজে কিভাবে টুথপেস্ট আপনার সাহায্য করতে পারে জেনে নেওয়া যাক।

দুর্গন্ধ দূর করতে:
পেঁয়াজ, রসুন বা মাছ ধুলে হাতে আঁশটে গন্ধ থেকে যায়। যা সাবান ব্যবহার করলেও যেতে চায় না৷ এই সময় হাতে একটু টুথপেস্ট নিয়ে ভালো করে রগড়ে এক মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন৷ দেখবেন, যাবতীয় দুর্গন্ধ দূর হয়ে গিয়েছে। সেই সঙ্গে আপনার নখও হয়ে উঠবে ঝকঝকে৷

জুতোর দাগ দূর করতে:
জুতোর দাগ দূর করতে টুথপেস্ট অনেক বেশি কার্যকর। চামড়ার জুতোর যে স্থানে দাগ রয়েছে সেখানে টুথপেস্ট লাগিয়ে নরম কাপড় দিয়ে কিছুক্ষণ ঘষে নিন। তারপর ভেজা কাপড় দিয়ে মুছে ফেলুন। দেখবেন চামড়ার জুতোটি একদম নতুনের মত হয়ে গিয়েছে।

গ্লাস বা কাপ পরিষ্কার করতে:
অনেক সময় কাপ বা গ্লাসে সরবত, ড্রিংক্স বা চায়ের দাগ লেগে থাকে, এই দাগ এক নিমিষে গায়েব করে দিতে সাহায্য নিন টুথপেস্ট-এর। একটি কাপড়ে বা স্পঞ্জে টুথপেস্ট নিয়ে গ্লাস বা কাপ ঘষে ঘষে পরিস্কার করুন। দেখবেন সেটি নতুনের মত হয়ে গিয়েছে। একই পদ্ধতিতে আয়নাও পরিষ্কার করে নিতে পারেন।

বাথরুমের সিঙ্ক পরিষ্কার করতে:
রান্নাঘর বা বাথরুমে সিঙ্কে জলের দাগ পরিস্কার করতেও সাহায্য করে টুথপেস্ট। পুরও সিঙ্কে একটু টুথপেস্ট দিয়ে একটা স্ক্রাবার এর সাহায্য ঘষে দিলে দেখবেন জলের দাগ থেকে আরম্ভ করে সব ময়লা ভ্যানিশ হয়ে গিয়েছে! নতুনের মত চকচক করবে সিঙ্কটি।

গয়না পরিষ্কার করতে:
সোনা, রূপা, হিরে ইত্যাদি গয়না চকচকে করতে টুথপেস্ট এর জুড়ি মেলা ভার। ব্রাশে একটু পেস্ট নিয়ে পছন্দের জুয়েলারির ওপর কিছুক্ষণ ঘষুন। তারপর ভেজা কাপড় দিয়ে তা মুছে ফেলুন। দেখবেন নতুনের মত হয়ে উছেঠে সেটি। তবে মুক্তা ও রং করা গয়নার উপর কখনোই ব্যবহার করবেন না। তাহলে ফল উল্টোই হবে।
Tags:

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.