সংসারের শ্রীবৃদ্ধিতে বাড়িতে অশ্বক্ষুর কেন রাখবেন ?

সংসারের শ্রীবৃদ্ধিতে বাড়িতে অশ্বক্ষুর কেন রাখবেন ?

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

অনেক বাড়িতেই দেখা যায় দরজার উপরে লাগানো আছে লোহার অশ্বক্ষুর | পৃথিবীর নানা দেশেই এই ক্ষুর বা ঘোড়ার নাল নিয়ে নানা সংস্কার প্রচলিত | আসুন এক ঝলকে দেখে নিই সেসব |

প্রচলিত বিশ্বাস হল—-

#  বাড়ির সদর দরজার উপরে লোহার অশ্বক্ষুর থাকলে তা পরিবারের সুখ সমৃদ্ধি ডেকে আনে | সংসারের শ্রীবৃদ্ধি করে | একইসঙ্গে দূরে রাখে অশুভ শক্তিকে |

#  অশ্বক্ষুর বানায় কর্মকার বা কামার | তাঁরা কাজ করেন হাতুড়ি এবং আগুন দিয়ে | হাতুড়িকে মনে করা হয় বিশ্বকর্মার প্রতীক | আগুন হল পবিত্র | তাই অশ্বক্ষুরও সংসারের জন্য পুণ্যপ্রসূ |

#  শস্যভাণ্ডার বা ধানের গোলায় কালো কাপড়ের উপর অশ্বক্ষুর রাখলে কোনওদিন শস্যর অভাব হয় না |

# আলমারিতে লোহার অশ্বক্ষুর লাগানো থাকলে কোনওদিন সংসারে অর্থাভাব হবে না |

# ডান হাতের মধ্যমায় আংটি হিসেবে অশ্বক্ষুর পরলে ভাগ্য সুপ্রসন্ন হয় |

# পুরনো অশ্বক্ষুর খুঁজে পেলে তাতে থুতু ফেলে বাঁ কাঁধের উপর দিয়ে ছুড়ে ফেলে দিলে ইচ্ছেপূরণ হয় |

# অশ্বক্ষুরকে একফালি চাঁদের প্রতীক বলে প্রাচীন মিশরে একে পবিত্র বলে মনে করা হত

# বলা হয় অশ্বক্ষুর আসলে মানুষের আধ্যাত্মিক ও জাগতিক‚ দুটি সত্ত্বারই প্রতীক

# বহু দেশে বিশ্বাস করা হয়‚ নিউ ইয়ার্স ইভে বালিশের নিচে অশ্বক্ষুর নিয়ে ঘুমোতে গেলে নতুন বছর ভাল কাটে |

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply

pandit ravishankar

বিশ্বজন মোহিছে

রবিশঙ্কর আজীবন ভারতীয় মার্গসঙ্গীতের প্রতি থেকেছেন শ্রদ্ধাশীল। আর বারে বারে পাশ্চাত্যের উপযোগী করে তাকে পরিবেশন করেছেন। আবার জাপানি সঙ্গীতের সঙ্গে তাকে মিলিয়েও, দুই দেশের বাদ্যযন্ত্রের সম্মিলিত ব্যবহার করে নিরীক্ষা করেছেন। সারাক্ষণ, সব শুচিবায়ু ভেঙে, তিনি মেলানোর, মেশানোর, চেষ্টার, কৌতূহলের রাজ্যের বাসিন্দা হতে চেয়েছেন। এই প্রাণশক্তি আর প্রতিভার মিশ্রণেই, তিনি বিদেশের কাছে ভারতীয় মার্গসঙ্গীতের মুখ। আর ভারতের কাছে, পাশ্চাত্যের জৌলুসযুক্ত তারকা।