প্রতিদিন মিনিট পাঁচেক স্কোয়াট-এর সুফল সম্পর্কে জেনে নিন!

প্রতিদিন চেয়ার বসার মত এই ব্যায়াম কে বলা হয় স্কোয়াট। চেয়ারে বসার মতো করে হাঁটু ভাঁজ করে কোমর ও পিঠ সোজা রাখাই হল এই ব্যায়ামের নিয়ম। প্রতিদিন শরীরচর্চার সময় না পেলেও অন্তত মিনিট পাঁচেক স্কোয়াট আপনাকে সম্পূর্ণ সুস্থ রাখতে পারে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, লাফানো, দৌড়ানো, হাঁটাহাঁটিতে পায়ের পেশীর যে উপকার মেলে, স্কোয়াট তার অনেকটাই পুষিয়ে দেয়। শুধু পেশীর জোর বৃদ্ধি করাই নয়, টেস্টোস্টেরন ও গ্রোথ হরমোন নিঃসরণে বিশেষ কার্যকর এই ব্যায়াম। সারা শরীরে শক্তির সমান বণ্টনের ক্ষেত্রেও বিশেষ সাহায্য করে এই ব্যায়াম।

এই ব্যায়াম মাসখানেক করলে দৌড়ানো, লাফানো বা পরিশ্রম করার ক্ষমতা অনেক বেড়ে যাবে। যারা খেলোয়াড়, তাদের ক্ষেত্রেও জোরে দৌড়াতে কিংবা বেশি লাফাতে সাহায্য করে স্কোয়াট।

স্কোয়াট করলে শুধু পেশীর উপকার নয় বরং হাঁটাহাঁটিতে যে পরিমাণ ক্যালোরি বার্ন হয়, তার চেয়েও বেশি ফ্যাট ঝরাতে সক্ষম। স্কোয়াটের ফলে মাংসপেশি সুগঠিত হয়, আর প্রতি পাউন্ডের জন্য অতিরিক্ত ৫০-৭০ ক্যালোরি বার্ন হয়। ফলে মাত্র ১০ পাউন্ড পেশী থেকেই আপনি ৫০০-৭০০ ক্যালোরি বার্ন করতে পারবেন।

এই ব্যায়ামের প্রভাবে সারা শরীরে রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি পায়। হরমোন ক্ষরণ, কোষে কোষে পুষ্টিগুণ পৌঁছানোর কাজও সহজ হয়ে যায়। ফলে পেটের সমস্যা প্রতিরোধও অনেক সহজ করে তোলে এই স্কোয়াটের অভ্যাস।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.