Tags Posts tagged with "Ranveer Singh"

Ranveer Singh

বলিউডে আপাতত হট জুটিদের মধ্যে একনম্বরে রয়েছেন রাম-লীলা ওরফে দীপবীরের জুটি। নয় নয় করে ৬টা বছর ভালবাসার সম্পর্কে আবদ্ধ ছিলেন রণবীর সিং ও দীপিকা পাদুকোন। একদিকে রণবীর কপূরের সঙ্গে সবেমাত্র বিচ্ছেদ নায়িকার। অন্যদিকে ইন্ডাস্ট্রিতে জাঁকিয়ে বসার চেষ্টা করে চলেছেন রণবীর। সেইসময় এই দুজনের দেখা। এরপর শেষ পরিণতি তাঁদের বিয়ে। কিন্তু এরমধ্যে কি কোনদিনও নিজের মস্তানি ওরফে দীপিকাকে ঠকানোর কথা ভেবেছেন বা ভাবতে পারেন বাজিরাও? কী বললেন তিনি?

সম্প্রতি ‘গল্লি বয়’-এর প্রোমোশনে করণ জোহরের সঙ্গে টেপকাস্ট নামক একটি চ্যাট শোতে হাজির হয়েছিলেন রণবীর। আর সেখানেই তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হয়,বলিউডের বিউটি কুইনদের সম্পর্কে। প্রশ্ন করা হয়, বি-টাউনে এত সুন্দরীদের সঙ্গে কাজ করছেন বা করতে চলেছেন অভিনেতা। তবে কী কোনদিনও নিজের বউকে ছেড়ে অন্য কারোর দিকে মন দেওয়ার ইচ্ছা রাখেন রণবীর? উত্তরে গল্লি বয় বলেন,’আমি এই ইন্ডাস্ট্রিতে এখনও পর্যন্ত দীপিকার মত সুন্দরী,আকর্ষণীয় অভিনেত্রী দেখিনি। আর তাঁকে আমি আমার জীবনসঙ্গী হিসেবে পেয়েছি। এর থেকে বড় বিষয় কিছু হতে পারে না। আমি দীপিকাকে ৬ বছর ধরে চিনি। আর এটাও সবথেকে বড় কারণ ওকে না ঠকানোর।’

এছাড়াও রণবীরকে যখন জিজ্ঞাসা করা হয় বন্ধু থেকে স্বামী স্ত্রী হয়ে ওঠার পর সম্পর্কের কতটা পরিবর্তন হয়েছে,অভিনেতা জানান,’আমাদের মধ্যে কোন পরিবর্তনই হয়নি। এখনও আমরা বাড়িতে একসঙ্গে বন্ধুদের মতই থাকি। আমরা স্বামী স্ত্রী হওয়ার আগে খুব ভাল বন্ধু। আর একটা সম্পর্ক টিকে থাকার জন্য এটাই সবথেকে বড় বিষয়।’

রণবীর সিং আর ফ্যাশন এই দুটো কথা শুনলে ছোখ কপালে ওঠার জোগাড় হয় সকলের। বাকি সেলেবদের থেকে শুধু আলাদাই নয়, একেবারে ভিন্ন স্বাদের পোশাকেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন রণবীর। এই বিষয় স্ত্রী দীপিকা পাদুকোনের সঙ্গে কোনও মিলই নেই তাঁদের। তবে এই অমিলের মধ্যেও নিজেদের মনের মিল খুঁজে পেয়েছেন এই জুটি। এবং তারপর থেকেই স্বামীর পছন্দকে নিজের পছন্দ বানিয়ে ফেলেছেন অভিনেত্রী।

আজকাল  বলিউডে নাকি রণবীরের আজব ফাশ্যান সেন্সই ট্রেন্ডিং। তাই দীপিকা পাদুকোনও বরের থেকে ধার করেন জামাকাপড়। সম্প্রতি ফিল্মফেয়ার স্টাইল অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানে এসে অভিনেত্রী জানান,রণবীরের ওয়ারড্রব থেকে তিনি প্রায়ই টি-শার্ট, সোয়েটশার্ট বের করে পরে নেন । তবে আর একদিকে রণবীরও নাকি দীপিকার স্নানগ্লাস ধার করে মাঝে মধ্যেই পরে থাকেন।

‘গল্লি বয়’ হয়ে থিয়েটার মাতাতে আসছেন রণবীর সিং। সঙ্গে থাকছেন আলিয়া ভট্ট। ছবিটির গল্প একজন র‍্যাপারের । তাঁর স্ট্রাগলের এবং তাঁর পরিবারের। পাশাপাশি থাকবে তাঁর ভালবাসার গল্পও। ভালবাসা থাকবে আর ঘনিষ্টতা থাকবেনা তা কখনই সম্ভব নয়,তাই ছবিতে দেখানো হয়েছে রণবীর আলিয়ার দুষ্টু মিষ্টি প্রেমের দৃশ্যও। তবে এতে ঘোরতর আপত্তি জানিয়েছে সেন্সর বোর্ড।

ছবি রিলিজের আগের মুহূর্তেই রণবীর-আলিয়ার একটি চুমুর দৃশ্য সহ বেশ কয়েকটি ঘনিষ্ঠ দৃশ্য নাকি বাদ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন সেন্সর কর্তারা। ১৩ সেকেন্ডের চুমুর দৃশ্যই নয়,বেশ কিছু গালিগালাজের দৃশ্যও বাদ দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যেই রণবীর আলিয়ার জুটি কৌতুহল বাড়িয়েছে দর্শকদের।  এমনকি ইতিমধ্যে বার্লিন ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে বেশ প্রশংসিত হয়েছে ছবিটি।

প্রসঙ্গত,জোয়া আখতর পরিচালিত ‘গল্লি বয়’ ছবিটি বাস্তবীক এক র‍্যাপারের জীবন থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে তৈরি করা হয়েছে। আগামীকাল অর্থাৎ ১৪ ফেব্রুয়ারি রিলিজ হতে চলেছে এই ছবিটি।

আপাতত আসন্ন ছবি ‘গল্লি নয়’-এর প্রোমশনে ব্যস্ত অভিনেতা। তাই নানা সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সাক্ষাৎকারে পৌঁছে যাচ্ছেন তিনি। সেইরকমই এক সাক্ষাৎকারে এসে  রাখি সাওয়ন্ত প্রসঙ্গে কথা বললেন রণবীর। কিন্তু হঠাৎ কেনই বা  রাখি সাওয়ন্তের প্রসঙ্গ তুললেন তিনি?

সাধারণত সাক্ষাৎকার চলাকালীন সঞ্চালকের তরফ থেকে প্রশ্ন করা হয়, সাক্ষাৎকার দাতা উত্তর দেন। কিন্তু এইবার অন্যরকম কান্ড ঘটতে দেখা গেল। সাক্ষাৎকার দাতা অর্থাৎ রণবীর নিজেই প্রশ্ন করে বসলেন রিপোর্টারকে। জিজ্ঞাসা করলেন ‘আজ অবধি এমন কোন সেলিব্রিটির সাক্ষাৎকার নেওয়ার অভিজ্ঞতা খুব খারাপ ?’ উত্তরে নাম আসে  রাখি সাওয়ন্তের। আর তখনই রণবীর জানান, রাখিকে খুবই পছন্দ তাঁর। এমনকি  রাখিকে রক স্টার আখ্যাও দেন অভিনেতা।

তবে শুধু ছবি নিয়েই নয়, রণবীর শেয়ার করেন তাঁর স্ট্রাগলের কিছু গল্প। সেখানে রণবীর জানান,একবার অনিল কপূরের মিস্টার ইন্ডিয়ার মত পোশাক পরে শানু শর্মা (কাস্টিং ডিরেক্টর)-এর বাড়িতে গিয়েছিলেন রণবীর। তিনি আশা করেছিলেন হয়তো সেইটি দেখার পর শেখর কপূর পরিচালিত ‘মিস্টার ইন্ডিয়া’র রিমেকে তাঁকে মূল চরিত্রের জন্য পছন্দ করবেন শানু।

প্রসঙ্গত,বাজিরাও আর সিম্বা- পর ১৪ ফেব্রুয়ারি ‘গল্লি বয়’ হয়ে আসছেন রণবীর সিং। সঙ্গে থাকছেন আলিয়া ভট্টও। ছবিটি পরিচালনা করেছেন জোয়া আখতর।

নতুন প্রজন্মের প্রতিভা যেমন একদিকে বলিউডের ঐতিহ্যকে তুলে ধরছে,তেমন অন্যদিকে গোটা বি-টাউন জুড়ে চলছে প্রেমের মরশুম। আর সেই মরশুমের জনপ্রিয় জুটি হল আলিয়া ভট্ট এবং রণবীর কপূর। এঁদের অনস্ক্রিন কেমিস্ট্রি এখনও সকলের চোখে না পড়লেও অফস্ক্রিন কেমিস্ট্রিতে আপাতত ঘায়েল অনুরাগীরা। কোন আড়াল আবডালে না থেকে সকলকে প্রথমেই জানিয়ে দিয়েছেন তাঁদের এই মিষ্টি সম্পর্কের কথা। তবে বিয়ে নিয়ে যে আপাতত ভাবতে রাজি নন,তাও জানিয়ে দিয়েছেন সাফ।  কিন্তু মনে মনে যে রণবীরকে নিয়ে অনেক দূর ভেবে ফেলেছেন আলিয়া তা বোঝা গিয়েছে বারবার। এরই মধ্যে নিজের মেয়ের নাম অবধি ঠিক করে ফেলেছেন নায়িকা।

সম্প্রতি একটি নাচের রিয়ালিটি শোতে আসন্ন ছবি ‘গল্লি বয়’-এর প্রোমোশনে এসেছিলেন আলিয়া। আর সেখানেই এক প্রতিযোগী আলিয়ার নামের উচ্চারণ ভুল করে তাঁকে আলমা বলে ডাকেন। তখনই হেসে আলিয়া বলেন,”আলমা খুব সুন্দর একটি নাম। আমি আমার মেয়ের নাম রাখব আলমা।” শুধু তাই নয়, রণবীরের সঙ্গে বিয়ে নিয়ে প্রশ্ন করা হলে অভিনেত্রী জানান,আপাতত বলিউডে বেশ কিছু গ্র্যান্ড ওয়েডিং দেখে নিয়েছে সকলে। এখন একটু বিরতির প্রয়োজন। আপাতত ভাল ছবি করা,ছবি দেখায় মন দিতে চান আলিয়া।

প্রসঙ্গত,আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পেতে চলেছে ‘গল্লি বয়’। আর সেই ছবিতে এই প্রথমবার পরিচালক জোয়া আখতর এবং অভিনেতা রণবীর সিং-এর সঙ্গে জুটি বাঁধতে দেখা গিয়েছে আলিয়া ভট্টকে।

খুব শিগগিরি ‘গল্লি বয়’ হয়ে আসছেন রণবীর সিং। সঙ্গে থাকছেন আলিয়া ভট্টও। এই প্রথমবার রণবীর সিং-এর সঙ্গে অনস্ক্রিন জুটি বাঁধলেন আলিয়া। আর প্রথমবারেই দর্শকদের চমকে দিয়েছেন এই জুটি। ফিল্ম রিলিজের আগেই বিপুল প্রশংসা পেয়ে গিয়েছে এই ছবি।

তবে আলিয়ার সঙ্গে প্রথমবার একসঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা কেমন? একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের সাক্ষাৎকারে উত্তরে রণবীর বললেন,” আলিয়া একজন অত্যন্ত ভাল অভিনেত্রী এবং সবথেকে বড় বিষয় ভীষণ নিয়ম মেনে চলে আলিয়া।” এই প্রসঙ্গে কথা বলতে বলতে রণবীর প্রসঙ্গ তোলেন তাঁর স্ত্রী দীপিকা পাদুকোনেরও। তিনি বলেন,”আমি দীপিকার মধ্যেও এই নিয়ম মেনে চলার একটা ভাল অভ্যেস দেখতে পাই। যেটা আলিয়ার সঙ্গে কাজ করতে গিয়েও দেখেছি। এঁদের থেকে আমি এই একটা জিনিস শেখার চেষ্টা করছি।”

প্রসঙ্গত, আলিয়া ভট্ট ও রণবীর সিং-এর আসন্ন ছবি ‘গল্লি বয়’ আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি আসতে চলেছে থিয়েটারে। যেটি পরিচালনা করছেন জোয়া আখতর। রিলিজের আগে ইতিমধ্যেই বেশ জনপ্রিয়তা পেয়ে গিয়েছে ছবিটির সমস্ত গান, ট্রেলর সহ আলিয়া রণবীর।

বাজিরাও হোক বা সিম্বা কিংবা গল্লি বয়, আপাতত বলিউডে রাজ করছেন রণবীর সিং। বরাবরই ভাল অভিনেতার তালিকায় রয়েছে তাঁর নাম। দর্শকদের কাছেও একইভাবে জনপ্রিয় এই অভিনেতা। তাই তিনি যেখানেই যান না কেন ভীর উপচে পরে চারিদিকে।

রণবীরের নতুন ছবি ‘গল্লি বয়’-এর প্রোমোশনেও দেখা গেল একই চিত্র। এই ছবিটির প্রোমোশনে সম্প্রতি অভিনেতা হাজির হয়েছিলেন একটি শপিং মলে। স্বাভাবিকভাবেই ভিড় জমেছিল হাজার হাজার মানুষের। আর সেখানেই উত্তেজিত হয়ে দর্শকদের মধ্যে হঠাৎই ঝাঁপ দেন রণবীর। তাঁদের স্বপ্নের নায়ককে হাতের নাগালে পেয়ে তখন ফ্যানেদের উচ্ছ্বাস দেখার মত ছিল সেই দিন ৷  কিন্তু রণবীরের এই কান্ডটি নিয়ে গর্জে উঠলেন নেটিজেনরা।  

জানা গিয়েছে, অনুষ্ঠানে যখন দর্শকদের মাঝে ঝাঁপিয়ে পড়েন অভিনেতা, তখন সেই ভিড় ও চাপে আহত হন অনেকে। আর এই খবর জানা মাত্রই টুইটারে তাঁকে নিয়ে শুরু হয়ে যায় সমালোচনা। শোনা গিয়েছে সে সময় ফ্লোরে বসেছিলেন এক মহিলা ৷ তিনি নাকি মাথায় গুরুতর চোট পেয়েছেন ৷ কেউ লেখেন, এবার এসব শিশুসুলভ কাজকর্ম বন্ধ করা উচিত রণবীরের। কেউ আবার লেখেন, “আমি তো ওখানেই ছিলাম। কিন্তু আপনাকে ধরার চেষ্টা করিনি।” 

প্রসঙ্গত, ব়্যাপার ভিভিয়ান ফার্নান্ডেজ বা ডিভাইনের জীবন অবলম্বনে তৈরি হয়েছে ‘গাল্লি বয়’ ছবিটি। মেরে গল্লি মে’ র‍্যাপটি করে বিখ্যাত হন তিনি। সেই ভিভিয়ানের জীবনের স্ট্রাগল নিয়েই তৈরি হয়েছে ছবিটি। যেটি পরিচালনা করেছেন জোয়া আখতর। প্রধান  চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলিয়া ভাট ও রণবীর সিং। এছাড়া রয়েছেন কল্কি কোয়েচলিন, বিজয় রাজ, চৈতন্য শর্মা, অমৃতা সুভাষ ও সুরভিন চাওলা। ১৪ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পাবে ‘গাল্লি বয়’। 

আপাতত বলিউডে ছেয়ে রয়েছে একটাই জুটি। রণবীর সিং এবং দীপিকা পাদুকোনের জুটি। দীপবীরের বিয়ের পর থেকে এখনও অবধি সেনসেশনাল এঁদের প্রেমকাহিনি। এঁরা কখন কোথায় যাচ্ছেন, কী বলছেন, কি করছেন সবকিছুই প্রায় ভাইরাল নেট দুনিয়ায়। বিয়ের আগে হোক বা বিয়ের পর,বরাবরই দীপিকার প্রতি ভালবাসার কথা সর্বসমক্ষে জাহির করে এসেছেন রণবীর। এমনকি বিয়ের পর তাঁর পদবীও পাল্টাতে প্রস্তুত ছিলেন এই তারকা। প্রত্যেকবারই বউয়ের প্রশংসায় সকলের নজর কেড়েছেন এই অভিনেতা। আর এবার একটি খোলা চিঠি সরাসরি দীপিকাকে লিখে পাঠালেন রণবীর সিং।

চিঠিতে রণবীর লেখেন,” আমার জীবনে সবথেকে কাছের মানুষ হল দীপিকা। বউ বলেই নয়, দীপিকার মত এত ভাল মনের মানুষ আমার জীবনে খুব কম দেখা। আমি নির্দিধায় বলতে পারি আমিও ওর জীবনে খুব কাছের একজন মানুষ। দীপিকার মধ্যে সবকিছু রয়েছে।  বুদ্ধিমত্তা,দয়া,ঘরোয়া স্বভাব এই সবকিছুর সংমিশ্রণ রয়েছে তাঁর মধ্যে। আমার মাঝেমধ্যে ওর প্রশংসা করা ছেড়ে দিতে ইচ্ছা করে,কারণ আমি মনে করি দীপিকা ভগবানের একটি অসামান্য সৃষ্টি। আমি নিজেকে অত্যন্ত ভাগ্যবান মনে করি যে আমি ওর স্বামী হওয়ার যোগ্যতা অর্জন করতে পেরেছি”।

আপাতত এই চিঠিটি দেখা যাচ্ছে দীপিকা পাদুকোনের গুগল অফিসিয়াল পেজে। আর সেই ছিঠি ইতিমধ্যেই ভাইরাল নেট দুনিয়ায়। এর আগে রণবীরের দীপিকার প্রতি ভালবাসা ও সম্মান নজর কেড়েছে সকলের। এর আগে বহু ইন্টারভিউতে দীপিকার সম্পর্কে প্রশংসা করতে দেখা গিয়েছে রণবীরকে। এমনকি রণবীরের বলিউড সাফল্যের পিছনেও যে তাঁরই হাত রয়েছে সেটিও বারেবারে স্বীকার করেছেন অভিনেতা।

সিম্বা শুধু বক্স অফিসই নয়, জয় করেছে দর্শকদের মনও। চুল্বুল পান্ডে, রাওডি রাঠোর ও বলিউডের বাজিরাও সিংঘমকে পিছনে ফেলে এক লাফে জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌছেছেন রোহিত শেট্টির ‘সিম্বা’। সৌজন্যে রণবীর সিং। ২০১৮-র প্রথমে আলাউদ্দিন খিলজিতে মাতিয়ে শেষ করলেন একজন পুলিশ অফিসারের কর্তব্য পালন করে। আর সেই প্রতিক্রিয়াই দেখা যাচ্ছে ভারতের সর্বত্র। 

সম্প্রতি রাজস্থানে গিয়েছিলেন সিম্বা ওরফে রণবির সিং। সেখান থেকে ফিরে এসে তাঁর টুইটার হ্যান্ডেলে রাজস্থান পুলিশকে ধন্যবাদ জানান অভিনেতা। আর সেই সিম্বায় মুগ্ধ হয়েই রাজস্থান পুলিশ একটি পাল্টা পোস্ট করে টুইটারে। যেখানে গোটা ‘সিম্বা’ টিম ও বিশেষ করে রণবীর সিং-এর প্রশংসায় পঞ্চমুখ হয় তাঁরা। শুধু রণবীরই নয়, স্ত্রী দীপিকা পাদুকোনের সঙ্গে তাঁর জুটিকেও বড্ড পছন্দ তাঁদের। তাই পোস্টে লিখেই ফেলেন,এরপর যখনই রণবীর ও দীপিকা একসঙ্গে রাজস্থান আসবেন, গোটা রাজস্থান পুলিশ ব্যান্ড বাজা নিয়ে তৈরি থাকবেন তাঁদের স্বাগত জানাতে। 

তবে শুধু সিম্বাই নয় পছন্দের এই অভিনেতার সব ছবিই যে তাঁদের দেখা, তা প্রকাশ পেয়েছে এই পোস্টটিতে। যেখানে লেখা রয়েছে,”একজন গল্লি বয় হয়ে ইন্ডাস্ট্রিতে এসে একের পর এক ছবিতে বাজিমাত করেছেন সিম্বা।” 

প্রসঙ্গত,২০১০ সালে ব্যন্ড বাজা বারাত’ দিয়ে বলিউডে প্রবেশ করেন রণবীর। তারপর একে একে বাজিরাও, খিলজি ও সিম্বা। আজ সকলের মনে  বি-টাউনের অন্যতম প্রতিভাবান ও বহুমুখী অভিনেতা হিসেবে যায়গা করে নিয়েছেন রণবীর সিং। 

লিখেছেন -
0 1697

এখন ভগনানি পরিবারের বউমা অর্থাৎ রণবীর সিং-এর ঘরনি হলেন দীপিকা পাদুকোন। যদিও সম্পর্ক দীর্ঘ ছ’বছরের কিন্তু এবার যে পাকাপাকিভাবে নিজের স্বামীকে আঁচলে বন্দি করেছেন দীপিকা সেটারই প্রমাণ দেয় এই নিয়মগুলো। হ্যাঁ, কয়েক মাসের মধ্যেই রণবীরের জন্য কিছু কড়া নিয়ম বেঁধে দিয়েছেন ‘মস্তানি’। আর সেই নিয়মের একফোঁটাও যে এদিক ওদিক করা যাবে না তাও সাফ জানিয়ে দিয়েছেন তিনি।

একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে রণবীর বলেছেন, দীপিকার নতুন নিয়ম,দেরি করে বাড়ি ঢোকা যাবে না। তাড়াতাড়ি বাড়ি ফিরতে হবে। বাড়ি থেকে যখনই বেরোও না কেন, খেয়ে বেরোতে হবে। না খেয়ে বাড়ি থেকে বেরনো যাবে না। আর সর্বশেষ নিয়মটি হল কোনওভাবেই তাঁর ফোন মিস করা যাবে না।

তবে দীপিকার এই নতুন নিয়মে একেবারেই অখুশি নন রণবীর। অনস্ক্রিনে খিলজি হলেও ঘরে যে বউয়েরই রাজ চলবে তা আগে থেকেই মেনে নিয়েছিলেন তিনি। তাই কিছুটা কষ্ট হলেও লেট নাইট পার্টির অভ্যাস ত্যাগ করার চেষ্টায় আছেন এই অভিনেতা। এছাড়াও অভিনেতা জানিয়েছেন পদবী পরিবর্তন করে নিতেও তাঁর কোন আপত্তি নেই।

error: Content is protected !!