মীরা নায়ারের ছবিতে তব্বু, ঈশান খট্টর

মীরা নায়ারের ছবিতে তব্বু, ঈশান খট্টর

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
freepressjournal_2019-08_ac6deabe-6436-40d5-bda9-56fbcc1c959f_Mira_Nair

বিক্রম শেঠের ‘আ সুটেবল বয়’ অবলম্বনে ছবি করছেন মীরা নায়ার। ছবির শুটিংয়ের প্রস্তুতি শুরু করে দিয়েছেন পরিচালক। শোনা যাচ্ছে আগামী মাস থেকেই শুরু হয়ে যাবে শুটিং। এর আগে এই ছবির সঙ্গে বহু তারকার যুক্ত থাকার খবর শোনা গেলেও খবর বলছে, তব্বু এবং ঈশান খট্টর দু’টি চরিত্র করছেন ছবিতে। এর আগে মীরার ‘নেমসেক’-এ কাজ করেছিলেন তব্বু। ছবিতে তাঁর বিপরীতে ছিলেন ইরফান খান। এই ছবি নিয়ে তব্বু বলেছেন, “মীরার সঙ্গে কাজের সুযোগ পাওয়া মানেই একটা অন্য ধরনের ক্রিয়েটিভ চ্যালেঞ্জ। ‘নেমসেক’-এ কাজ করেই সেই স্বাদটা পেয়েছিলাম আমি।” অন্য দিকে শাহিদ কপূরের ভাই ঈশানের কথায়, “মীরা যে ভাবে গল্পটি নির্মাণ করছেন বা আমার চরিত্রটির কথা ভাবছেন, সেই ভাবনার সঙ্গে সামঞ্জস্য রাখতে পারাটাই আমার কাছে মূল চ্যালেঞ্জ। আশা করছি, দুনিয়াজোড়া দর্শকের কাছেই আমার চরিত্রটি (মান কপূর) গ্রহণযোগ্য হবে।” প্রসঙ্গত, মাজিদ মাজিদির ‘বিয়ন্ড দ্য ক্লাউডস’ ছবিটি করে সিনেমা ইন্ডাস্ট্রিতে প্রবেশ করেন ঈশান। তার পরে ‘ধড়ক’-এ কাজ করলেও ঈশান বরাবরই অন্য ধরনের ছবি করতে ইচ্ছুক ছিলেন। মত বিরোধের ফলে বিশাল ভরদ্বাজের ছবি থেকে বাদ যাওয়ার পরে এই প্রজেক্টটিই তাঁর কাছে বিশ্বমানের ছবি হতে চলেছে।

ছবিতে তব্বু এবং ঈশান ছাড়াও রয়েছেন নবাগতা তানিয়া মানিকতলা। তিনি এর আগে টিভি সিরিজ ‘ফ্লেমস’-এ অভিনয় করেছিলেন। ছবির প্রধান চরিত্র লতার ভূমিকায় তাঁকে দেখা যাবে। ১৯৫১ সালের প্রেক্ষাপটে উত্তর ভারতের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী লতা। তার মা চায়, লতা বিয়ে করে সংসারী হোক। কিন্তু লতার ইচ্ছে, জীবনটাকে সে আরও ভরপুর ভাবে বাঁচবে। নিজেকে আবিষ্কার করবে। মান কপূরের চরিত্রটির সঙ্গে লতার সমীকরণের উপর নির্ভর করেই এগিয়েছে ছবির গল্প। তবে এই মুহূর্তে ছবি নিয়ে এর বেশি কিছু জানাতে চান না পরিচালক নিজে। ছবির শুটিং পুরোটা দেশেই হবে বলে তিনি এর আগে জানিয়েছিলেন।

Tags

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply