৯৬% মহিলা নিজেকে অসুন্দর ভাবেন!

৯৬% মহিলা নিজেকে অসুন্দর ভাবেন!

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp
693-06379851
© Masterfile Royalty-Free
Model Release: Yes
Property Release: No
Cheerful young woman covering her face against blue background

শুনলে আশ্চর্য হবেন সমীক্ষা বলছে মাত্র ৪ শতাংশ মহিলা নিজেদের সুন্দরী মনে করেন| সম্প্রতি প্রসাধনী প্রস্তুতকারক ব্রান্ড ডাভ একটা গবেষণা করে| তাদের এই গবেষণায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছিলেন চিত্রশিল্পীরা| ১৬-৬৪ বছর বয়সী ৬,৪০০ জন নারী বিভিন্ন শহর (স্যান ফ্রান্সিসকো‚ সাংঘাই‚ দিল্লি‚ লন্ডন এবং সাও পাওলো) থেকে অংশগ্রহণ করেছিলেন এই গবেষণায়|

একটা ঘরে ছিলেন চিত্রশিল্পীরা| পাশের একটা ঘর থেকে অংশগ্রহণকারী নারীরা নিজেদের বর্ণনা দিচ্ছিলেন| অন্য ঘরে বেসে সেই বর্ণনা শুনে ছবি আঁকছিলেন চিত্র শিল্পীরা| কেউ কাউকে দেখতে পাচ্ছিলেন না| এর পর অন্য এক অজানা ব্যক্তি এসে সেই নারীর বর্ণনা দিয়েছিলেন| এবং শিল্পী আরও এক বার সেই নারীর ছবি এঁকেছিলেন|

পরে দেখা যায়‚ নিজের দেওয়া বর্ণনা ও অন্য ব্যক্তির দেওয়া বর্ণনা থেকে আঁকা ছবির মধ্যে আকাশপাতাল তফাত| অধিকাংশ মহিলাই অসংখ্য খুঁতের কথা বলেছেন| যার ফলে সেই বর্ণনা থেকে আঁকা ছবি দেখতে অন্য রকম হয়েছে| অথচ অন্য ব্যক্তি যখন সেই মহিলার বিবরণ দিয়েছেন তখন বিভিন্ন খুঁতের উল্লেখ না করে যথা সম্ভব প্রকৃত রূপের বর্ণনা দিয়েছেন| ফলে আসল চেহারার সঙ্গে সেই ছবির মিল পাওয়া গেছে| এই গবেষণা থেকেই জানা গেছে মাত্র ৪ শতাংশ মহিলা নিজেকে সুন্দরী মনে করেন| অর্থাৎ বাকিরা সুন্দরী হলেও নিজেরা তা স্বীকার করেন না| বরং অন্যদের কাছে তাঁরা নিজেদের অসুন্দর প্রমাণ করার চেষ্টা করেন| এমনকি বেশির ভাগ মহিলারাই স্বীকার করেন‚ তাঁরা নিজেরাই নিজেদের সব থেকে বড় সমালোচক|

মনোবিদদের মতে বেশির ভাগ মহিলাই মনগড়া নিরপত্তাহীনতায় ভোগেন ফলে তাঁরা নিজেদের সুন্দর মনে করেন না| তাঁদের মতে এক জন নারী নিজের ব্যাপারে এতটাই বেশি সচেতন যে  নিজের সৌন্দর্য নিয়ে তাঁরা কখনও সন্তুষ্ট হতে পারেন না| মনোবিদদের মতে কোনও মহিলাই কুশ্রী নন| সকলেই তাঁরা নিজের মতো করে সুন্দরী| শুধু নিজের প্রতি আত্মবিশ্বাস না থাকার ফলে‚ তাঁরা নিজেদের সৌন্দর্য নিয়ে নিরাপত্তাহীনতায় ভোগেন|

Tags

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Leave a Reply