কফি খাওয়া ভাল না খারাপ?

312

সকালে ঘুম থেকে উঠে হোক বা দিনের অন্য কোনও সময় নিজেকে তাজা রাখতে এক কাপ কফির কোনও বিকল্প নেই। তবে শুধু ঘুম তাড়াতেই নয় কফির আরও অনেক গুণ আছে| রোজ নিয়ন্ত্রিত কফিপান শরীরের উপকারই করে| আসুন দেখে নেওয়া যাক কফি খাওয়ার উপকারিতা:

ডায়বিটিস নিয়ন্ত্রণ: বিভিন্ন হৃদযন্ত্র সংক্রান্ত অসুখ আর ডায়াবিটিস নিয়ন্ত্রণে থাকে যদি প্রতি দিন অল্প পরিমাণে কফি পান করেন|

স্কিন ক্যানসারের হাত থেকে বাঁচায়: নিয়মিত কফি পান স্কিন ক্যানসার হওয়ার সম্ভাবনা অনেকটা কমিয়ে দেয়| সেই সঙ্গে দেহের অন্য অংশেও ক্যান্সারের আশঙ্কা কমায়|

পার্কিনসন্স ডিসিজের সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়: দিনে কয়েক কাপ কপি খেলে পার্কিনসন্স ডিসিজ হওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়|

অ্যালজাইমারস হতে দেয় না – বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে এই রোগ দেখা দেয়| এই সময় যদি কফি খাওয়ার পরিমাণ বাড়িয়ে দেন তা হলে অ্যালজাইমারস হওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়|

স্ট্রেস কমায়: যাঁরা কাজের স্ট্রেসের কারণে রাতে ভাল করে ঘুমোতে পারেন না তাঁরা শোওয়ার কিছুক্ষণ আগে কফির গন্ধ শুঁকুন| কফির গন্ধ কিন্তু নিমেষে আপনার স্ট্রেস কমিয়ে দেবে|

কোলন সার্জারি হলে তাড়াতাড়ি সারিয়ে তোলে: কোলন সার্জারি হলে পেট পরিষ্কার রাখা খুব জরুরি| রোজ কফি খেলে আপনার পেট পরিষ্কার থাকবে আর তাড়াতাড়ি সেরে উঠবেন|

কফি আপনার শরীরের ফ্যাট কমাতে সাহায্য করবে এবং শারিরীক কার্যক্ষমতাবাড়াবে। সকালে জিম শুরু করার আগে এক কাপ ব্ল্যাক কফি খান। গবেষকরা বলছেন, এতে আপনার শরীর থেকে ফ্যাট ও ক্যালরি ক্ষয় হবে।

পুষ্টিগুণ আর অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে ভরপুর এই পানীয়টি। কফিতে ভিটামিন বি৫, ভিটামিন বি২, থায়ামাইনবি১, পটাশিয়াম ও ম্যাগনেশিয়াম রয়েছে। শুধু তাই নয় কফিতে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আপনাকে রাখবে আরও বেশি সতেজ।

সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে কফি শুষ্ক চোখের সমস্যা সমাধানেও বেশ কার্যকর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.