রাজেশ খন্না ছিলেন সবচেয়ে কিপটে অভিনেতা, বললেন ওয়াহিদা রহমান

বলিউডের প্রথম সুপারস্টার তিনি। প্রথম সিনেমা ‘আখরি খত’-এ তাঁর অভিনয় মুগ্ধ করেছিল দর্শকদের। কিন্তু শক্তি সামন্ত পরিচালিত ‘আরাধনা’য় প্রকৃত আবির্ভাব ঘটে তাঁর। খোলা জিপে ‘মেরি স্বপ্ন কি রানি’ শুধু শর্মিলা ঠাকুরের নয়, সমস্ত মহিলাদের হৃদয়েই ঢেউ খেলেছিল। তারপর তো সবটাই ইতিহাস। কত যে প্রেম আর বিয়ের প্রস্তাব পেয়েছিলেন তার ইয়ত্তা নেই। বলিছি রাজেশ খন্নার কথা। তাঁর অভনিয় ক্ষমতা, তাঁর কথা বলার স্টাইল, নাচের ভঙ্গী, সবেতেই মেতে উঠতেন দর্শক। ডিম্পল কাপাডিয়াকে যখন বিয়ে করেন কত যে হৃদয়ের টুকরো হয়েছিল তার কোনও হিসেব নেই।

কিন্তু এই রাজেশ খন্না, বলিউডের প্রথম হার্টথ্রব নাকি বেজায় কিপটে ছিলেন। এমনটাই জানিয়েছেন বরিষ্ঠ অভিনেত্রী ওয়াহিদা রহমান। সোনি টিভির রিয়্যালিটি শো ‘সুপারস্টার সিঙ্গার’-এ অতিথি হয়ে এসেছিলেন এই ডাকসাইটে অভিনেত্রী। খেলার ছলেই শোয়ের হোস্ট জয় ভানুশালী ওয়াহিদাজিকে জিজ্ঞেস করেন যে বলিউ়ডে সবচেয়ে কিপটে মানুষ কে। তারই উত্তরে ওয়াহিদাজি বলেন, ” রাজেশ খন্না আমার দেখা সবচেয়ে কিপটে মানুষ। টাকা পয়সার কথা উঠলেই উনি সোজা অন্য দিকে মুখ ঘুরিয়ে নিতেন। কোনওরকম কথাবার্তার মধ্যেই যেতেন না। আবার বেজায় লেটলতিফও ছিলেন তিনি। সেটে খুব দেরি করে আসতেন। হয়তো সকালের শুট, উনি এসে পৌঁছলেন মাঝ দুপুরে।”

রাজেশ খন্নার নামে নিন্দে করলেও ওয়াহিদা রহমান কিন্তু অভিনেতা শশী কপূর ও শাম্মি কপূরের প্রশংসা করেছেন। উনি বলেছেন, “শশী কপূর ভীষণ হ্যান্ডসম ছিলেন। উনি মহিলাদের খুব সম্মান করতেন। একেবারে সজ্জন ব্যক্তি ছিলেন। শাম্মি কপূর আবার প্রচণ্ড ঠাট্টা, মস্করা করতেন। সেটে সকলকে একেবারে জমিয়ে রাখতেন।”

দেখা যাক, ওয়াহিদা রহমানের এই মন্তব্য আবার নয়া কোনও বিতর্কের সৃষ্টি করে কি না!

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
Share on whatsapp

Please share your feedback

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ওয়র্থ ব্রাদার্স সংস্থার লেটারহেড

মায়ার খেলা

চার দিকে মায়াবি নীল আলো। পেছনে বাজনা বাজছে। তাঁবুর নীচে এ প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে উড়ে বেড়াচ্ছে সাদা ঝিকমিকে ব্যালে